জিমেইল একাউন্ট ভেরিফিকেশন

Level 2
প্রথম বর্ষ, সরকারি বাঙলা কলেজ, ঢাকা

জিমেইল একাউন্ট ভেরিফিকেশন। জিমেইল এর পাসওয়ার্ড জানলেও আইডি হ্যাক হবে না।

বর্তমান সময়ে আমাদের জিমেইল একাউন্ট টি আমাদের ব্যক্তিগত জীবনে অনেক অনেক  গুরুত্বপূর্ন।  কারণ, এই জিমেইল অ্যাকাউন্টটিতে আমাদের অনেক গুরুত্বপূর্ণ মেইল থাকতে পারে সেই সাথে আমাদের গুগল ফটোতে অনেক গুরুত্বপূর্ণ ফটো থাকতে পারে, গুগল ড্রাইভসে অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য থাকতে পারে সেই সাথে এই জিমেইল একাউন্ট যদি আমাদের হয়তো বা অনেকেরই একটি ইউটিউব চ্যানেল খোলা থাকতে পারে এছাড়াও ফেসবুক আইডিতে এই জিমেইল অ্যাকাউন্টটি সংযুক্ত থাকতে পারে।

দৈনন্দিন জীবনে অনেক কাজে আমরা এই জিমেইল একাউন্টি ব্যবহার করে থাকি। তাই এই অ্যাকাউন্টটি  যদি কোনো কারণে হ্যাক হয়ে যায় তাহলে আমরা অনেক ক্ষতির সম্মুখীন হতে পারি। তো আজকে আমি আমার এই কন্টেনটিতে আপনাদের জানাবো কিভাবে আপনি আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টটি সর্বোচ্চ নিরাপদে রাখতে পারবেন এবং কিভাবে আপনি আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টটি হ্যাক হওয়া থেকে রক্ষা করতে পারবেন এমনকি আপনার জিমেইলে পাসওয়ার্ড দিয়ে যদি কেউ জেনে যায় তাহলেও সে যেন আপনার জিমেইলে প্রবেশ করতে না পারে।

আপনি যদি আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টে নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বেগ হয়ে থাকেন  তাহলে এই কনটেন্ট টি শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত মনোযোগ সহকারে পড়ুন। তাহলে বুঝতে পারবেন কিভাবে আপনি আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টটি সম্পূর্ণ নিরাপদে রাখতে পারবেন। চলুন শুরু করা যাক।

জিমেইল অ্যাকাউন্ট ভেরিফিকেশন পদ্ধতি

১. আপনার জিমেইল একাউন্ট এর সুরক্ষা নিশ্চিত করার জন্য প্রথমে আপনাকে চলে যেতে হবে আপনার জিমেইল একাউন্টে। প্রবেশ করার পর আপনি আপনার ডান পাশে প্রফাইল আইকনটি দেখতে পারবেন। সেখানে ক্লিক করবেন।

২. এরপর নিচের Manage account On this device নামের অপশনে ক্লিক করবেন। ক্লিক করার পর আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টটি সামনে শো করবে সেখানে ক্লিক করতে হবে।

৩. ক্লিক করার পর নতুন একটি ইন্টারফেস শো করবে। সেখান থেকে চার নাম্বারে একটি অপশন পাবেন সিকিউরিটি/security  নামে। সেখানে ক্লিক করবেন।

৪. এরপর step-2 তে দেখতে পারবেন Verification was turned off লিখা আছে সেখানে ক্লিক করবেন।

৫. ক্লিক করার পর Manage settings নামের অপশন আসবে। সেখানে ক্লিক করবেন।

৬. ক্লিক করার পর আপনার জিমেইল একাউন্টের পাসওয়ার্ড চাইলে আপনি সেখানে পাসওয়ার্ডটি দিয়ে দিবেন। এরপর নেক্সট অপশনে ক্লিক করবেন।

৭. তারপর কন্টিনিউতে ক্লিক করবেন। আপনার মোবাইল নম্বরটি বসিয়ে দিবেন।

এখানে যেই নাম্বারটি দিবেন সেই নাম্বারটিতে প্রত্যেকবার একটি করে কোড আসবে। প্রত্যেকবার বলতে যতবার আপনি আপনার জিমেইলে প্রবেশ করবেন ততবারই আপনার জিমেইলে প্রবেশ করার জন্য এই নাম্বারটিতে একটি করে কোড আসবে। কোডটি এন্টার না করা পর্যন্ত আপনি জিমেইলে প্রবেশ করতে পারবেন না।

অর্থাৎ আপনার পাসওয়ার্ডটি যদি অন্য কেউ জেনেও যায় সে ক্ষেত্রেও জিমেইলে প্রবেশ করার জন্য আপনার নম্বরের এই কোডটি তার প্রয়োজন হবে। তাই আপনি ছাড়া অন্য কেউ আপনার জিমেইল একাউন্টে প্রবেশ করতে পারবে না।

এভাবে আপনার জিমেইল একাউন্টে নিরাপত্তা নিশ্চিত হবে। তোর ফোন নাম্বারটি দেওয়ার পর নিচে সেন্ট রামের অপশনে ক্লিক করবেন। এরপর আপনার কাছে কোড চাইবে। আপনি যে নাম্বারটি দিয়েছেন সেই নাম্বারটিতে একটি কোড আসবে। সেই করতে এই স্থানে বসিয়ে দিবেন।

৮. এরপর নেক্সট অপশন এ ক্লিক করবেন। নেক্সট অপশন এ ক্লিক করার পর টার্ন অন/Turn on নামে একটি অপশন আসবে। Turn on  নামের অপশনটিতে ক্লিক করে দিবেন। তাহলে হয়ে যাবে আপনার অ্যাকাউন্টটি ভেরিফিকেশন।

উপসংহার

আপনি আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্ট ভেরিফিকেশন করার পর  কেউ যদি আপনার জিমেইল একাউন্টের পাসওয়ার্ড ও জেনে যায় তাহলেও আপনার পারমিশন ছাড়া সে আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করতে পারবে না। কেননা, আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টে  প্রবেশ করার জন্য আপনার প্রদত্ত ফোন নাম্বারে যেই করতে আসবে সেই করতে তার কাছে না থাকার কারণে সে প্রবেশ করতে পারবে না। আশাকরি বুঝতে পেরেছেন। তো আর দেরি না করে এখনই এই সেটিংসটি করে ফেলুন।

Level 2

আমি আয়শা আক্তার দিপা। প্রথম বর্ষ, সরকারি বাঙলা কলেজ, ঢাকা। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 11 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 11 টি টিউন ও 6 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 0 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

এটাতো সেই ৮ বছর আগেই জানা হয়ে গেছে। নতুন কিছু থাকলে টিউন করেন। ধন্যবাদ।