ফোনে LTE বা 5G Only না থাকা সত্ত্বেও, Force করে 4G বা 5G Only করবেন যেভাবে

টিউন বিভাগ টিপস এন্ড ট্রিকস
প্রকাশিত
জোসস করেছেন
Level 15
কন্টেন্ট রাইটার, টেল টেক আইটি, গাইবান্ধা

আমাদের মধ্যে বেশিরভাগ ব্যবহারকারী বর্তমানে 4G হ্যান্ডসেট ব্যবহার করে থাকেন। তবে, আমরা যদি বাংলাদেশের নেটওয়ার্ক পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করি, তাহলে সকলের হাতে হাতে ফোরজি কিংবা ফাইভ জি স্মার্টফোন থাকলেও, সকল জায়গায় 4G এবং 5G নেটওয়ার্ক থাকে না। যদিও, বর্তমানে বাংলাদেশের প্রায় সকল জায়গায় 4G নেটওয়ার্ক Available রয়েছে এবং যেকোন ব্যবহারকারী এ সমস্ত নেটওয়ার্ক কাভারে যে থেকে ফোরজি ইন্টারনেট ব্যবহার করতে পারেন।

কিন্তু, সারা বাংলাদেশ জুড়ে ফোরজি নেটওয়ার্ক Available থাকলেও, সব সময় আমাদের মোবাইলে 4G পায়না এবং এর জন্য আমাদেরকে ফাঁকা জায়গায় অবস্থান করতে হয়। আপনি যদি এই মুহূর্তে অনেক গুরুত্বপূর্ণ কাজ করেন এবং এজন্য আপনার ফোরজি নেটওয়ার্কের প্রয়োজন হয়, তাহলে আপনাকে অবশ্যই বিড়ম্বনা করতে হবে এবং এজন্য আপনাকে কোন ফাঁকা জায়গায় অবস্থান করতে হবে। আবার, অনেক সময় ফাঁকা জায়গায় অবস্থান করেও 4G নেটওয়ার্ক থাকে না।

এরকম পরিস্থিতিতে আমরা এরকম উপায় খুঁজি যে, কিভাবে আমাদের স্মার্টফোনে জোর করে LTE বা 4G নেটওয়ার্ক রাখা যায়। ‌যাতে করে, আমরা যেখানেই যাই না কেন, সেখানে যাতে 4G থেকে 3G ইন্টারনেটে নেমে না আসে। আপনি যখন নেটওয়ার্ক জনিত সমস্যায় পড়েন, তখন আপনাকে জোর করে LTE বা 5G নেটওয়ার্কে আপনার মোবাইলের ইন্টারনেট রাখা অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ হয়ে যায়।

যদিও আমাদের অনেকের মোবাইলে নেটওয়ার্ক সেটিংস থেকে 3G, 4G কিংবা 5G নেটওয়ার্ক সিলেক্ট করার সেটিং রয়েছে। তবে, এ সমস্ত মোবাইলে শুধুমাত্র LTE অথবা 5G Only করার মত সেটিংস নেই। সেসব মোবাইলে শুধুমাত্র, 3G/4G/5G Auto এর মত সেটিং রয়েছে। আর এরকম পরিস্থিতিতে আপনি যদি আপনার মোবাইলের সেটিংস থেকে 3G/4G/5G Auto সিলেক্ট করে দেন, তাহলে নেটওয়ার্ক অনুযায়ী আপনার মোবাইলের নেটওয়ার্ক ও সেগুলো সিলেক্ট করে নিবে।

কিন্তু, আমরা যেহেতু আমাদের মোবাইলের নেটওয়ার্ক সবসময় 4G অথবা 5G রাখতে চাই, তাই আমাদেরকে আমাদের মোবাইলের সেটিংস এর বাহিরে ভিন্নভাবে চিন্তা করতে হবে। আমাদেরকে এমন কোন উপায় খুঁজে বের করতে হবে, যাতে করে আমাদের মোবাইলে LTE বা 5G Only সেটিংস না থাকা সত্ত্বেও, আমরা আমাদের নেটওয়ার্ক ব্যবহারের সময় এগুলো সিলেক্ট করতে পারি।

তবে, আমাদের মোবাইলে 5G Only করার আগে কিছু বিষয় মাথায় রাখতে হবে। চলুন তবে, সে বিষয় সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

কেন আমাদের মোবাইলে শুধুমাত্র 5G Only করা উচিত নয়?

কেন আমাদের মোবাইলে শুধুমাত্র 5G Only করা উচিত নয়?

আপনি যদি জানতে আপনার ফোনটিতে শুধুমাত্র 5G Only করা থাকুক, তাহলে আপনি এই টিউনের নিচে দেখানো পদ্ধতিতে 5G Only করতে পারবেন। তবে, আমরা যে সমস্ত ব্রান্ডের ফোন ব্যবহার করি, সেসব ফোন প্রস্তুতকারক এবং মোবাইল অপারেটররা কখনোই জোর করে 5G ব্যবহার করার অনুমতি দেয় না। এক্ষেত্রে, আপনি samsung এবং অন্যান্য আরো ব্রান্ডের ফোনগুলোতে 5G Only করার মত অপশন দেখতে পাবেন না।

আপনি যদি কখনো 5G Only করেন, তাহলে দুর্বল নেটওয়ার্ক পরিস্থিতিতে এটি আপনার নেটওয়ার্ককে 4G তে সুইচ করতে বাধা দেয়। তাই, আপনি যদি সবসময় ফাইভ-জি নেটওয়ার্কের না থাকেন এবং আপনাকে ভিন্ন ভিন্ন কাভারেজে যেতে হয়, তাহলে আপনাকে অবশ্যই 4G/5G Auto অপশনটি নির্বাচন করা উচিত।

আবার, অনেক সময় আপনি যদি কোন জনবহুল জায়গায় থেকে 5G Only করে নেটওয়ার্ক ব্যবহার করতে চান এবং সেখানে 5G Available থাকে, তাহলে আপনি অনেক ক্ষেত্রে 4G এর চাইতেও কম স্পিড পেতে পারেন। যদিও, বাংলাদেশের ক্ষেত্রে আপনি যদি এখন কোন জায়গায় থেকে ৫জি নেটওয়ার্ক ব্যবহার করার মত এক্সেস পান, তাহলে সেখানে হয়তোবা ফুল স্পিড পাবেন। তবে আপনি যদি আমার এই আর্টিকেলটি অনেকদিন পর দেখে থাকেন এবং সেই মুহূর্তে ফাইভ-জি নেটওয়ার্ক সকল জায়গায় Available হয়, তাহলে আপনি এরকম সমস্যার সম্মুখীন হতে পারেন।

তবে, এখনো পর্যন্ত বাংলাদেশের ফাইভ থাকলেও, সেটি 4G নেটওয়ার্কের মতোই অতটা উন্নত নয়। তাই, আপনি আপনি যেহেতু সবসময় ৫জি নেটওয়ার্ক কাভারেজে থাকবেন না, তাই নেটওয়ার্ক সেটিং সিলেকশন করার সময় আপনার অবশ্যই 4G/5G Auto সিলেক্ট করা উচিত।

বরং, নেটওয়ার্ক সিলেক্ট করার ক্ষেত্রে আপনাকে 4G Only করা অনেক বেশি ভালো হবে এবং আমি আপনাকে ভালো নেটওয়ার্ক পাওয়ার জন্য 4G Only সিলেক্ট করতে বলবো। তাহলে চলুন এবার দেখে নেওয়া যাক, আপনি কীভাবে আপনার মোবাইলের সেটিংসে LTE বা 5G Only থাকা না সত্ত্বেও, কিভাবে জোর করে LTE বা 5G Only করে নিতে পারেন।

কীভাবে আপনার ফোনে Force করে LTE বা 5G Only করবেন?

কীভাবে আপনার ফোনে জোর করে LTE বা 5G Only করবেন?

আপনি যদি এই মুহূর্তে অ্যান্ড্রয়েডের অনেক পুরাতন ভার্সন ব্যবহার করেন, তাহলে আপনি হয়তোবা নেটওয়ার্ক সেটিংস থেকে এ ধরনের পরিবর্তন করতে পারবেন। তবে, আপনি যদি এখন অ্যান্ড্রয়েড ১৩ কিংবা আরো সব লেটেস্ট অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন ব্যবহার করেন, তাহলে আপনি এসব মোবাইলে জোর করে LTE বা 5G Only করতে পারবেন না। এক্ষেত্রে আপনাকে আপনার মোবাইলে LTE বা 5G Only করার জন্য ফোন কোড অথবা থার্ড পার্টি অ্যাপের সাহায্য নিতে হবে।

আপনি কিছু কোড এবং থার্ড পার্টি অ্যাপ এর মাধ্যমে এ ধরনের লুকানো সেটিংস গুলোর অ্যাক্সেস করতে পারবেন।

যদিও গুগল প্লে স্টোরে অনেক LTE বা 5G Only করার জন্য অনেক অ্যাপ রয়েছে। তবে, এ সমস্ত অ্যাপস গুলোর মধ্যে থেকে Netmonitor অ্যাপটি ব্যবহার করে আপনি LTE বা 5G Only করতে পারবেন।

১. এজন্য প্রথমে Google Play Store থেকে Netmonitor অ্যাপটি ডাউনলোড করুন।

২. অ্যাপটি ডাউনলোড করার পর সেটি ওপেন করুন এবং সেখানে থাকা অপশন গুলোতে ক্লিক করে সামনে এগিয়ে যান। এবার আপনি ডান পাশের থ্রি ডট আইকনে ক্লিক করুন এবং তারপর Service Menu অপশনে চলে যান।

Netmonitor অ্যাপ Tree dot option

Netmonitor Service menu

৩. আর এরপর Phone info বাটনে ক্লিক করুন।

Netmonitor app Phone info

৪. এবার আপনি এখানে Set Preferred Network Type ড্রপ ডাউন মেনুতে ক্লিক করুন এবং তারপর আপনি এখানে যে নেটওয়ার্ক টাইপ টি সিলেক্ট করতে চান সেটি নির্বাচন করুন। এখন আপনি যদি আপনার মোবাইলের নেটওয়ার্ক জোর করে 5G করতে চান, তাহলে এখানে থাকা NR only অপশনটি সিলেক্ট করে দিন। আর তাহলেই, আপনার মোবাইলে 5G Only সেট হয়ে যাবে।

আমি যেহেতু এই মুহূর্তে ফোরজি হ্যান্ডসেট ব্যবহার করছি, তাই আমার এখানে 5G Only অপশন পাবো না। এক্ষেত্রে আপনিও যদি 4G Only করতে চান, তাহলে আপনাকে এখান থেকে LTE Only সিলেক্ট করে দিতে হবে। আর তাহলেই, আপনার মোবাইলে 4G Only হবে।

LTE Only সিলেক্ট

Preferred Network Type থেকে LTE বা 5G Only সিলেক্ট

৫. তবে আপনি একই অপশনটি আপনার মোবাইলের Network সেটিংস থেকে ও পেতে পারেন। তবে, বেশিরভাগ Android ফোনে নেটওয়ার্ক সিলেক্ট করার ক্ষেত্রে যেহেতু 4G এবং 5G Only করার অপশন থাকেনা, তাই আপনাকে বিকল্প অপশন হিসেবে অ্যাপ ব্যবহার অথবা কোড ডায়াল করার মত অপশন বেছে নিতে হবে। মোবাইলের সেটিংস থেকে LTE বা 5G Only করার জন্য Network Connection সেটিংসে যেতে হবে।

LTE বা 5G Only করার জন্য Network Connection সেটিংস

৬. এরপর SIM card and mobile network অপশন থেকে আপনার মোবাইল নেটওয়ার্কের উপর ক্লিক করতে হবে।

SIM card and mobile network অপশনমোবাইল সিম নেটওয়ার্ক সিলেক্ট

৭. এবার আপনি এখানে Preferred network type থেকে LTE বা 5G Only করতে পারবেন।

Preferred network type

Preferred network type থেকে LTE বা 5G Only সিলেক্ট করা

তবে, আমার মোবাইলটিতে যেহেতু সেটিংস থেকে 4G Only করার সুযোগ নেই, তাই এক্ষেত্রে আমি কোড ডায়াল অথবা থার্ড পার্টি অ্যাপ ব্যবহার করে 4G Only করব।

আমাদের ব্যবহার করা বর্তমানের প্রায় সকল অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলেই যেহেতু Preferred network type সেটিংসে 4G বা 5G Only করার অপশন নেই, তাই এক্ষেত্রে আমাদেরকেও 4G বা 5G Only করার জন্য অন্যান্য বিকল্প উপায় গুলো অবলম্বন করতে হবে। যেসব বিকল্প গুলোর মধ্যে থেকে আপনি কোড ডায়াল করে ও 4G বা 5G Only করতে পারবেন।

কোড ডায়াল করার মাধ্যমে কীভাবে 4G বা 5G Only করবেন?

কোড ডায়াল করার মাধ্যমে কীভাবে 4G বা 5G Only করবেন?

অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলের নেটওয়ার্ক সেটিংসে যদি 4G বা 5G Only করার মত অপশন না থাকে, তাহলে এক্ষেত্রে আপনি কোন থার্ড পার্টি অ্যাপ ব্যবহার করতে পারেন। তবে, আপনি যদি অ্যাপ ব্যবহার করতে না চান, তাহলে মোবাইলে কোড ডায়াল করে ও LTE বা 5G Only করতে পারবেন।

চলুন তবে এবার দেখে নেওয়া যাক, আপনি কীভাবে আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনে কোড ডায়াল করার মাধ্যমে 4G বা 5G Only করতে পারেন।

১. এজন্য আপনি প্রথমে আপনার ফোনের ডায়াল প্যাডে যান। এরপর, সেখানে *#*#4636#*#* টাইপ করুন।

4G বা 5G Only করার কোড

২. আপনি এটি লেখার সঙ্গে সঙ্গে, Testing পেজে চলে আসবেন এবং সেখানে Phone Information ক্লিক করার পর নেটওয়ার্ক টাইপ সিলেক্ট করার অপশন পাবেন।

Phone Information

৩. এবার আপনি এখানে পূর্বের মতো LTE অথবা NR (5G) অপশন গুলো বাছাই করুন। একইভাবে আপনি যদি পূর্বে LTE বা 5G Only করে থাকেন, তাহলে এখান থেকে সেগুলো Disable ও করে দিতে পারেন।

Preferred network type

উল্লেখ্য যে, আপনি যদি এভাবে জোর করে 4G বা 5G Only করেন, তাহলে আপনার মোবাইলে ভয়েস কল আসার ক্ষেত্রে সমস্যা হতে পারে। উদাহরণস্বরূপ, আপনি যদি আপনার মোবাইলের নেটওয়ার্ক জনিত সমস্যার কারণে 4G Only করে থাকেন, তাহলে আপনার মোবাইলে কোন কল আসবে না এবং একই সাথে আপনিও কাউকে কল করতে পারবেন না। এক্ষেত্রে অপর প্রান্তের ব্যক্তির কাছে আপনার মোবাইলটি বন্ধ দেখাবে এবং আপনিও কাউকে কল দিতে গেলে ফোন কেটে যাবে।

যাই হোক, এই মুহূর্তে আপনি যে সিমটি 4G বা 5G Only করতে চাচ্ছেন, সেটিতে অবশ্যই ফোন কলের বিষয়টি মাথায় রাখবেন।

অ্যান্ড্রয়েড ফোনে জোর করে 4G বা 5G Only করা নিয়ে শেষ কথা

যদিও আপনি কিছু কিছু অ্যান্ড্রয়েড ফোনে সরাসরি নেটওয়ার্ক সেটিংস থেকে 4G বা 5G Only করার অপশন পেয়ে যাবেন। তবে, বর্তমান সময়ের বেশিরভাগ অ্যান্ড্রয়েড ফোনগুলোতে এই অপশন থাকে না এবং এজন্য আপনাকে উপরের কৌশল গুলো অবলম্বন করতে হবে। তবে, দ্রুত সময়ের মধ্যে 4G বা 5G Only করা এবং 4G বা 5G Only থেকে Auto অপশনটি সিলেক্ট করার জন্য আপনি চাইলে থার্ড পার্টি আর ব্যবহার করতে পারেন। এক্ষেত্রে আপনাকে প্রতিবার কোড ডায়াল করার মতো ঝামেলায় যেতে হবে না।

আপনি যদি আপনার বাসা কিংবা অফিসে প্রায়ই নেটওয়ার্ক 4G থেকে 3G তে পরিবর্তন হয়ে যাওয়ার মত সমস্যা ফেস করেন, তাহলে নিরবিচ্ছিন্ন ভাবে 4G নেটওয়ার্ক অপব্যবহার করার জন্য অবশ্যই উপরে দেখানো পদ্ধতিতে 4G Only করে রাখতে পারেন। এতে করে, বারবার আপনার নেটওয়ার্ক Drop হয়ে যাওয়ার মত সমস্যায় আর পড়তে হবে না। তবে, আপনাকে কখনোই দীর্ঘ সময়ের জন্য 4G Only করে রাখা উচিত নয়। কেননা, এতে করে আপনার সেই সিমে আর কেউ কল করতে পারবে না এবং আপনিও কাউকে কল করতে পারবেন না।

তবে, এজন্য আপনি মিসকল এলার্ট চালু করে রাখতে পারেন। যাতে করে পরবর্তীতে আপনি সেই ব্যক্তিকে ফোন করতে পারেন। ধন্যবাদ।

Level 15

আমি মো আতিকুর ইসলাম। কন্টেন্ট রাইটার, টেল টেক আইটি, গাইবান্ধা। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 3 বছর 7 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 364 টি টিউন ও 93 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 61 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 3 টিউনারকে ফলো করি।

“আল্লাহর ভয়ে তুমি যা কিছু ছেড়ে দিবে, আল্লাহ্ তোমাকে তার চেয়ে উত্তম কিছু অবশ্যই দান করবেন।” —হযরত মোহাম্মদ (সঃ)


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস