অন্যতম Facial Recognition কোম্পানি, Clearview AI-কে তদন্ত করছে UK এবং Australia

Facial recognition কোম্পানি Clearview AI কে ডাটা প্রাইভেসি নজরদারির অভিযোগে তদন্ত করেছে UK এবং Australia। কোম্পানিটি ইন্টারনেট থেকে বিলিয়নেরও বেশি ফটো স্ক্রাপিং করে নজরে এসেছি সবার।

UK এর Information Commissioner's Office (ICO) এবং Australia এর Office of the Australian Information Commissioner এক সাথে Clearview কে তদন্ত করার ঘোষণা দেন গত বৃহস্পতিবার।

এই দুটি নিয়ন্ত্রক সংস্থা জানিয়েছেন তদন্তটি বিশেষ করে, Clearview AI এর ফটো স্ক্র্যাপ এবং ইউজারদের বায়োমেট্রিক বিষয়ের উপর আলোকপাত করবে।

তবে Clearview AIএর দাবী এটি শুধুমাত্র একটি সার্চ ইঞ্জিন যা দিয়ে ব্যবহারকারীরা নির্দিষ্ট মুখমণ্ডলের ছবি সার্চ করতে পারবে। তারা আরও জানায় তারা ছবি গুলো স্ক্র্যাপ করেছে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া যেমন, Facebook, YouTube, Google থেকে। কোন ব্যবহারকারী যখন তাদের অ্যাপ ব্যবহার করে কোন ছবি সার্চ দেবে সেটি সাথে সাথে দেখাবে ছবিটি কোথায় আপলোড করা আছে এবং ছবির ব্যক্তিটি কে।

এই Clearview AIকোম্পানিটি এ বছরের জানুয়ারি পর্যন্ত ও অজানা ছিল কিন্তু যখন  New York Times এটি নিয়ে একটি প্রতিবেদন দিয়েছিল তখন থেকেই এই কোম্পানি আলোচনায় আসে। অবশ্য New York Times এর প্রতিবেদনে দাবী করা হয়েছিল কোম্পানিটির এই প্রযুক্তিটি শুধু মাত্র পুলিশ ফোর্স ব্যবহার করছে।

এভাবে Clearview AI ব্যক্তিগত ছবি এবং বায়োমেট্রিক ডাটা ইউজারদের অজান্তেই ব্যবহার করার জন্য সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীদের মধ্যে ক্ষোভে দেখা দেয়। এবং  Facebook, Twitter, এবং YouTube মত প্রতিষ্ঠান থেকে Cease and desist ল্যাটার দ্বারা যথেষ্ট ক্ষতিগ্রস্তও হয়েছিল কোম্পানিটি।

ফেব্রুয়ারি মাসে Clearview AI কোম্পানিটি অভিযোগ করে তারা বড় ধরনের ডাটা চুরির শিকার হয়েছে। তাদের ক্লায়েন্টদের বিশাল ডাটা কেউ বেআইনি ভাবে চুরি করেছে।

ICO এবং OAIC তাদের এক বিবৃতিতে বলেছেন তারা ভবিষ্যতে অন্য ডেটা নিরাপত্তা সংস্থা গুলোকেও সাহায্য করবে। কানাডা ঘোষণা করেছিল ফেব্রুয়ারিতে তারাও Clearview AI এর এরূপ ডাটা প্রকাশের জন্য তদন্ত শুরু করবে এবং সম্প্রতি কানাডাতে এই কোম্পানিটি তদন্তের জন্য সমস্ত কার্যক্রম বন্ধ রেখেছে।

সুতরাং বলাই যায়, Facial Recognition নৈতিকতার বিষয়টি এই মুহূর্তে বিশেষ তদন্তের অধীনে আছে। গত মাসে IBM, Amazon, এবং Microsoft এর মত কোম্পানি গুলোও ঘোষণা করেছে তারা তাদের Facial Recognition সফটওয়্যার আইন প্রয়োগকারীদের কাছে বিক্রয় স্থগিত করবে।

George Floyd আন্দোলনের পর পুলিশের কাছে Facial Recognition সফটওয়্যার বিক্রির বিষয়টিতে নৈতিকতার প্রশ্ন উঠে কারণ প্রযুক্তিটিতে বারবারই বর্ণবাদ পক্ষপাতিত্ব দেখা গিয়েছিল।

-
টেকটিউনস টেকবুম - ১৪ জুলাই ২০২০

Level 2

আমি টেকটিউনস টেকবুম। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 7 বছর 9 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 410 টি টিউন ও 0 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 1 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস