স্মার্ট টিভিতে অনলাইনে লাইভ টিভি দেখার সহজ মাধ্যম

স্মার্ট টিভিতে অনলাইনে লাইভ টিভি দেখার সহজ মাধ্যম

Live TV

সম্মানিত কাস্টমার বৃন্দ আমরা এখন সবাই কম বেশি ওয়াই ফাই এর মাধ্যমে ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকি। আর এই ইন্টারনেট ব্যবহার করে বেশির ভাগ সময়ই আমরা ইউটিউব থেকে ভিডিও দেখে থাকি আর এই ইউটিউব এর ভিডিও এখন বেশির ভাগই HD ও  4K  হওয়ায় আমরা ভালো রেজুলেশনের ভিডিও উপভোগ করে থাকি। আর সেই জন্য মূলত এখন আমরা যখন কেবল টিভির মাধ্যমে যখন ডিশ চ্যানেল গুলো দেখতে যাই তখন পরি বিড়ম্বনায় কারন এখন প্রায় ক্যাবল টিভিগুলো নিন্মমানের হওয়ায়  রেজুলেশন খুবই খারাপ দেখায়। আর সেই কারনে আমরা বেশির ভাগ ক্ষেত্রে অনলাইনে HD কোয়ালিটির চ্যানেল গুলো দেখে থাকি। কিন্তু মূলত এই গুলো খুব ব্যয় বহুল ও কষ্ট সাধ্য আবার আমাদের দেশে অনেক ক্ষেত্রেই এই গুলো কাজ করে না বললেই চলে। আবার কিছু মাধ্যম বা সোর্সের সাহায্যে মাসিক চার্জ এর মাধ্যমে অনেক সময় সেই সার্ভিসগুলো নিয়ে থাকি। এই সব গুলো পদ্ধতিই আমাদের জন্য  খুব কষ্ট সাধ্য তাই আপনাদের কথা চিন্তা করে আমরা নিয়ে আসছি লাইভ টিভি চ্যানেল গুলো HD তে দেখার জন্য ভালো একটা APP যেখানে আপনি বাংলা চ্যানেল গুলোও দেখতে পারবেন।

 

নিচের মত করে  আমরা APP টি  Download করতে হবে।

এখানে  ২ টি লিঙ্ক রয়েছে ১টি app link এবং অন্যটি source link

লিঙ্ক গুলো হলঃ এইখানে এক সাথে ২ টি লিঙ্ক  দেওয়া আছে, প্রথমে app link টি Download করবেন।

123568864 365296741369858 6062594507777871114 n

এরপরে source file Download করবেন। নিচের মত করে। source file টি Download করতে হলে source link এ যাবো। 123717142 904310430107018 4747609709340723251 n

source file টি Download করতে গেলে আমাদের ১ টি সমস্যা  হবে এটি হচ্ছে source file টি  pendrive এ নিলে Install হবে না এবং এটি কাজ ও  করবে না সেজন্য আপনাকে TV মাধ্যমে file টি Download করতে হবে, Download করে নিলে এই খানে একটা Audio option আসবে এই খানে click করলে file Download এর option আসবে ঐখানে ok click করতে হবে। এই ভাবে Download করবেন।

123411346 357875908835859 1480706962199470438 n

এখন  TV Screen এ ডট দেওয়া যায়গায় click করলে option আসবে সেখানে Downlist on করলে Download file দেখাবে।

source file click option click continue Install Done

নোটঃ  যাদের app Install হবে না TV app setting থেকে unknown source allow দিয়ে দিতে হবে।

এখন app list এ যাবো IPTV app টি click করবো warning option আসবে  সেখানে ok click করবো  ok দেওয়ার পর নিজের gmail id login করতে হবে  এবং accept option click করতে হবে। এরপর  playstore থেকে Install করতে হবে IPTV Install করার পর Option আসবে Terms & conditions এই গুলো ভালো মত পরে Accept দিলেই চলে আসবে আপনাদের কাঙ্ক্ষিত ৩০০+ অনলাইন লাইভ টিভি।

App Link: Download
Source file: Download

উপরের লিংকটি কাজ না করলে গুগল ড্রাইভ থেকে ডাউনলোড করুনঃ

জিমেইল দিয়ে রিকোয়েস্ট দিলে এক্সেস দিয়ে দেওয়া হবে।

 

কিভাবে ইন্সটল করবেন তা ভিডিও থেকে দেখে নিতে পারেন

 

Level 1

আমি ফয়সাল আহমেদ। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 10 মাস 4 সপ্তাহ যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 11 টি টিউন ও 0 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 0 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

প্রিয় টিউনার,

আপনার টিউন/টিউন গুলো নেগেটিভ র‌্যাংকিং পাচ্ছে।

‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ সেকশন ৬ অনুযায়ী

৬.১ টেকটিউনসে সফটওয়্যার, অ্যাপ, প্লাগিং, এক্সটেনশন, স্ক্রিপ্ট, ই-বুক, ডকুমেন্ট, মিউজিক, মুভি এর পাইরেটেড, ক্র্যাক, প্যাচ, কী-জেন, ফুল ভার্সন, লাইসেন্স, কপি রাইট ভঙ্গ করে এমন জাতীয় কোন টিউন টেকটিউনসে প্রকাশ করা যায় না।

৬.২ টিউনের যে কোন লিংক হতে হয় নন-রিডাইরেক্ট। টিউজিটর ও টিউডার রিডাউরেক্টের উদ্দেশ্যে, উদ্দেশ্যমূলক ভাবে ডাউলোডের জন্য প্রয়োজনীয় লিংক টিউনে না দিয়ে ডাউনলোড করতে নিজেস্ব সাইট, ব্লগ, ফোরাম, অনলাইন মিডিয়া, অনলাইন নিউজ মিডিয়া, ভিডিওতে গিয়ে ভিডিও এর ডেসক্রিপশনে ডাউনলোডের লিংক দেওয়া যায় না। যে কোন কিছু ডাউনলোডের জন্য প্রয়োজনীয় লিংক টিউনে অবস্থান করতে হয়।

৬.৩ যে কোন ফ্রিওয়্যার, ফ্রিঅ্যাপস, ফ্রি গেমস, ওপেন সোর্স প্রোডাক্ট, প্লাগিং, এক্সটেনশন, স্ক্রিপ্ট, ই-বুক, ডকুমেন্ট অন্য সাইটে, নিজের সাইটে, যে কোন ধরনের ফাইল হোস্টিং ও ফাইল শেয়ারিং সার্ভিসে হোস্ট করে বা অন্য কোথাও আপলোড করে ডাউনলোড করার জন্য লিংক দেওয়া যায় না। যে কোন ফ্রিওয়্যার, ফ্রিঅ্যাপস, ফ্রি গেমস, ওপেন সোর্স প্রোডাক্ট, প্লাগিং, এক্সটেনশন, স্ক্রিপ্ট, ই-বুক, ডকুমেন্ট ডাউনলোডের জন্য অবশ্যই এবং অবশ্যই নির্মাতা/প্রকাশক বা নির্মাতা/প্রকাশক প্রতিষ্ঠানের নিজেস্ব ওয়েবসাইট বা প্রোডাক্টপাতার ডাউনলোড লিংক বা নির্মাতা/প্রকাশক বা নির্মাতা/প্রকাশক প্রতিষ্ঠানের দ্বারা সাবমিট কৃত মার্কেটপ্লেস বা ডাউনলোড পোর্টাল এর ডাউনলোড লিংক দিতে হয়। ফ্রিওয়্যার ডাউনলোডের জন্য অব্যশ্যই নির্মাতার ওয়েবসাইট বা প্রোডাক্ট পেইজের ডাউলোড লিংক দিতে হয়।

৬.৪ যে কোন কিছু ডাউনলোডের জন্য প্রয়োজনীয় লিংক টিউনে অবস্থান করতে হয়। অর্থাৎ টিউজিটর ও টিউডার ডাউলোড লিংক এ ক্লিক করলে সেটি যেন মূল প্রোডাক্ট পাতা / মার্কেট প্লসে থেকে ডাউনলোড করতে পারে। টিউজিটর ও টিউডার রিডাউরেক্টের উদ্দেশ্যে নিজেস্ব বা এমন ব্লগ, ফোরাম, অনলাইন মিডিয়ার বা ভিডিওতে গিয়ে ডাউনলোড করতে হয়, এমন ডাউনলোড এর লিংক দেওয়া যায় না।

৬.৫ গান, মিউজিক, মুভি ডাউনলোডের জন্য কোন প্রকার টিউন টেকটিউনসে করা যায় না। শুধু মাত্র সাইন্সফিকশন মুভি, প্রযুক্তির কোন বিষয় আলোতপাত করা মুভি নিয়ে পূর্ণ রিভিউ প্রকাশ করা যায় অথবা যে কোন মুভির ট্যাকনিক্যাল দিক, মুভিতে বিশেষ কোন প্রযুক্তির ব্যবহার ইত্যাদি নিয়ে পূর্ণাঙ্গ টিউন করা যায়।


টেকটিউনস গাইডলাইন অনুযায়ী টিউন করুন

আপনি যদি কোন সফটওয়্যারের রিভিউ করতে চান তবে প্রথমত সফটওয়্যার, অ্যাপ, প্লাগিং, এক্সটেনশন, স্ক্রিপ্ট, ই-বুক, ডকুমেন্ট, মিউজিক, মুভি এর পাইরেটেড, ক্র্যাক, প্যাচ, কী-জেন, লাইসেন্স, কপি রাইট ভঙ্গ করে এমন জাতীয় কোন টিউন করা থেকে বিরত থাকুন।

দ্বিতীয়ত আপনি যে সফটওয়্যারের রিভিউ করতে চান সে সফটওয়্যারের পূর্ণ রিভিউ করুন। সফটওয়্যার ও অ্যাপ এর পূর্ণ রিভিউ ফরমেট, এই স্যাম্পল টিউন গুলো থেকে ধারনা নিন।

  1. Mobo Market ফুল ফেইজ রিভিউ : https://techtun.es/zJs0c5
  2. Poly Pane ফুল ফেইজ রিভিউ: https://techtun.es/oBc9Dc
  3. Feem ফুল ফেইজ রিভিউ: https://techtun.es/UVg1vN
  4. Magisk ফুল ফেইজ রিভিউ: https://techtun.es/s3mcmY
  5. Youtube Vanced ফুল ফেইজ রিভিউ: https://techtun.es/p5wdUe
  6. NewPipe ফুল ফেইজ রিভিউ: https://techtun.es/dQPwAk
  7. Easeus Todo Backup ফুল ফেইজ রিভিউ : https://techtun.es/4pFT24
  8. EaseUs Data Recovery Wizard ফুল ফেইজ রিভিউ: https://techtun.es/u7B0pf

যদি সফটওয়্যার ও অ্যাপ  ফ্রিওয়্যার হয় তবে আপনি টেকটিউনস গাইডলাইন মেনে ডাউনলোড লিংক দিন।

আর যদি সফটওয্যারটি ট্রায়ালওয়্যার, শেয়ারওয়্যার, ফ্রিমিয়াম বা পেইড সফটওয়্যার হয় তবে সফটওয়্যারটি কত দিনের ট্রায়াল, ট্রায়াল ও ফুল ভার্সনের কি কি পার্থক্য রয়েছে, আরও অন্য কোন কোন ভার্সন রযেছে কিনা, থাকলে কোন ভার্সনে কী সুবিধা তা বিস্তারিত টিউনে উল্লেখ করুন। ফুল ভার্সন এর মূল্য কত, কিভাবে ফুল ভার্সন কেনা বা Purchase করা যাবে, বাংলাদেশি টাকায় কত দাম পড়বে, ফুল ভার্সনের প্রাইজিং পেইজ ইত্যাদি বিস্তারিত টিউনে উল্লেখ করুন।

এরপর ডাউনলোডের জন্য অন্য আনঅফিসিয়াল/থার্ডপার্টি সাইটে, নিজের সাইটে, যে কোন ধরনের ফাইল হোস্টিং ও ফাইল শেয়ারিং সার্ভিসে হোস্ট করে বা অন্য কোথাও আপলোড করে ডাউনলোড করার জন্য লিংক না দিয়ে অবশ্যই এবং অবশ্যই নির্মাতা/প্রকাশক বা নির্মাতা/প্রকাশক প্রতিষ্ঠানের নিজেস্ব ওয়েবসাইট বা প্রোডাক্টপাতার ডাউনলোড লিংক বা নির্মাতা/প্রকাশক বা নির্মাতা/প্রকাশক প্রতিষ্ঠানের দ্বারা সাবমিট কৃত মার্কেটপ্লেস বা ডাউনলোড পোর্টাল এর ডাউনলোড লিংক দিন। অর্থাৎ মূল নির্মাতা/প্রকাশক বা নির্মাতা/প্রকাশক প্রতিষ্ঠানের অফিসিয়াল ডাউনলোড পাতার লিংক দিন যেখানে গিয়ে টিউডার/টিউজিটর ডাউনলোড করতে পারে।

টেকটিউনস ‘ট্রাসটেড টিউনার’ দের টিউন ফলো করে টিউন করুন:

আদর্শ টিউন হিসেবে টেকটিউনস ট্রাসটেড টিউনারদের ডাউনলোড টিউন গুলো ফলো করে টিউন করুন। টিউন করতে সবসময় টেকটিউনস ট্রাসটেড টিউনারদের মত মৌলিক, অরিজিনাল, কপিপেস্টমুক্ত, দারুন ইমেইজ ও ছবি সমৃদ্ধ, টেকটিউনসের সঠিক ও সুন্দর স্ট্যান্ডার্ড টিউন ফরমেটিং গাইডলাইন মোতাবেক ফরমেটিং করে, যে কোন ধরনের অ্যাফিলিয়েট, রেফারাল লিংক মুক্ত, টিউডার/টিউজিটর ড্রাইভাট ও রিডাইরেক্ট মু্ক্ত অরিজিনাল ও ইউনিক টিউন করুন।

টেকটিউনসে টিউন করার উদ্দেশ্য হচ্ছে টেকটিউনসে আপনার নিজেস্ব অডিএন্স ও ফলোয়ার তৈরি করা। টেকটিউনস এর অডিএন্স, টিউজার, টিউডার ও টিউজিটরদের জন্য মান সম্পন্ন কন্টেন্ট তৈরির মাধ্যমে আপনার টিউন র‌্যাংক করা, টিউনের জোসস পাওয়া এবং নিজের ফলোয়ার বাড়ানো। টেকটিউনসে আপনার টিউনের জোসস পেতে হয় ও ফলোয়ার বাড়াতে হয়। আপনার টিউনের যত বেশি জোসস ও আপনার যত বেশি ফলোয়ার হয় আপনার টিউন তত বেশি র‌্যাংক করে, তত বেশি ফলোয়ারদের কাছে পৌঁছায়। টেকটিউনসে প্রকাশিত আপনার টিউন গুলো আপনার ফলোয়ারদের কাছে শো করে। আপনার ফলোয়াররা আপনার টিউনে জোসস করলে, তা ফলোয়াররা বেশি দেখতে পান এবং বেশি জোসস পাওয়া টিউন গুলো টিউজাররা নিজেদের টিউন স্ক্রিনে দেখতে পায়। আপনার ফলোয়ার বাড়ান এবং কোয়ালিটি টিউন করে জোস বাড়ান।

টিউন র‌্যাংক

টেকটিউনসে ‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ মেনে সম্পূর্ণ অরিজিনাল, ইউনিক ও কপিপেস্ট মুক্ত টিউন প্রকাশ করে ‘টিউন র‌্যাংক’ করতে হয়। আপনার টিউনে একটি বাক্যও কপি পেস্ট কন্টেন্ট থাকলে ও ‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ ভঙ্গ হলে সে টিউন নেগেটিভ র‌্যাংক পায়। টিউনে একটি বাক্যও কপিপেস্ট হওয়া যায় না।

টিউনে যে বিষয় গুলো থাকলে আপনার টিউন নেগেটিভ র‌্যাংকিং পায়

  1. আপনার টিউনে একটি বাক্যও কপি পেস্ট কন্টেন্ট থাকলে। টিউনে একটি বাক্য ও কপিপেস্ট হওয়া যায় না। কপিপেস্ট কন্টেন্ট ও প্লেজারিজম (Plagiarism) ডিটেক্ট এর জন্য টেকটিউনস, এন্টি কপিপেস্ট ও এন্টি প্লেজারিজম (Plagiarism) টুল ব্যবহার করে যার মাধ্যমে কপিপেস্ট ও প্লেজারিজম (Plagiarism) কন্টেন্ট সিস্টেম থেকে সংয়ক্রিয় ভাবে Detect হয়। আপনার যে কোন একটি Single টিউনে একটি বাক্যও কপিপেস্ট হলে টেকটিউনসের কপিপেস্ট ও প্লেজারিজম (Plagiarism) Detection Mechanism তা ডিটেক্ট করে।
  2. অ্যাফিলিয়েট, রেফারাল লিংক দিয়ে ঘরে বসে অনলাইন আয় / টাকা ইনকাম জাতীয় টিউন করলে।
  3. টিউনের যে কোন ধরনের অ্যাফিলিয়েট, রেফারাল ডাউনলোড লিংক বা সর্ট লিংক থাকলে
  4. যে কোন অ্যাপ, সফটওয়্যার ইত্যাদির এর অফিসিয়াল স্টোর,  অফিসিয়াল মার্কেটপ্লেস, অফিসিয়াল পেইজ, অফিশিয়াল সাইট এর ডাউনলোড লিংক না দিয়ে নিজ থেকে নিজের সাইট, চ্যানেল, পেইজ, গ্রুপ এ লিংক স্থাপন করে বা অন্য কোন অ্যাফিলিয়েট ফাইল হোস্টে আপলোড করে লিংক স্থাপন করলে।
  5. টেকটিউনসে আংশিক টিউন করে বাকি অংশ পড়তে নিজের সাইট, অন্য যে কোন থার্ড পার্টি সাইটের বা ভিডিও এর লিংক স্থাপন করলে।
  6. টিউন করে ডাউনলোড করার জন্য লিংক টিউনে না দিয়ে নিজের সাইট, অন্য যে কোন থার্ড পার্টি সাইট বা ভিডিওতে গিয়ে ডাউনলোড করার লিংক স্থাপন করলে।
  7. টিউন শুরুতেই (টিউনের প্রথম ৫০ শব্দের মধ্যে) টিউনের বিভিন্ন শব্দ, বাক্যে নিজের সাইট, চ্যানেল, গ্রুপ এর লিংক টিউন এর সাথে অপ্রাসঙ্গিক ভাবে ইনলাইন  লিংক করলে।
  8. টিউনের বিভিন্ন শব্দে ও বাক্যে ঘন ঘন নিজের সাইট, চ্যানেল, গ্রুপ এর লিংক টিউন এর সাথে অপ্রাসঙ্গিক ইনলাইন লিংক করলে।
  9. টিউনের মাঝে কিছু প্যারা পর পর নিজের সাইট বা অন্য যে কোন সাইটের লিংক বা ব্লগের অন্য Post রিলেটেড টিউন, আরও পড়ুন ইত্যাদি হিসেবে টিউনে যোগ করলে।
  10. নিজের ব্লগ,সাইট বা অন্য যে কোন থার্ডপার্টি সাইটে কোন কন্টেন্ট লিখে, সেই কন্টেন্টের আংশিক অংশ টেকটিউনসে কপিপেস্ট করে বাকি অংশ পড়তে জোরপূর্বক টেকটিউনস ভিজিটরদের নিজের ব্লগ সাইটে রিডাইরেক্ট করলে।
  11. নিজের ব্লগের পূর্বের Post করা কোন কন্টেন্ট কপি করে টেকটিউনসে পেস্ট করলে।
  12. টিউজিটর ড্রাইভাট এর উদ্দেশ্যে টিউনে কোন ধরনের বর্ণনা না দিয়ে বিস্তারিত না লিখে শুধু মাত্র চ্যানেল লিংক ভিডিও টিউন করলে।
  13. টিউজিটর ড্রাইভাট এর উদ্দেশ্যে টিউনে ভিডিও এম্বেড অবস্থায় না দিয়ে ক্লিকএবল ভিডিও লিংক হিসেবে টিউনে স্থাপন করলে।
  14. নিজের করা একই টিউন কপি পেস্ট করে বারবার টেকটিউনসে প্রকাশ করলে।
  15. টেকটিউনসে প্রকাশিত অন্য টিউনারের টিউন হুবহু কপি করে বা আংশিক পরিবর্তন করে নিজের নামে টিউন করলে।
  16. ‘ক্লিকবেইট’ টিউন করলে। অর্থাৎ টিউনের থাম্বনেইল, টিউনের শিরোনামের সাথে টিউনের কন্টেন্টের মিল না থাকলে।

আপনার টিউন নেগেটিভ র‌্যাকিং পায়। এধরনের টিউন টিউজিটররা পছন্দ করে না এবং তা নেগেটিভ র‌্যাংকিং পায়। নেগেটিভ র‌্যাংকিং এর ফলে আপনার টিউন গুলো টেকটিউনস স্ক্রিন থেকে দূরে সরে যেতে থাকে।

অরিজিনাল টিউন প্রকাশ করে টিউন র‌্যাংক করা

টেকটিউনসে আপনার ফলোয়ার বাড়ানো ও বেশি মানুষের কাছে আপনার টিউন পৌঁছানোর জন্য প্রথম কাজ হচ্ছে টেকটিউনস গাইডলাইন মেনে অরিজিনাল টিউন প্রকাশ করে টিউন র‌্যাংক করা। টেকটিউনসে আপনার ফলোয়ার বাড়ানো ও বেশি মানুষের কাছে আপনার টিউন পৌঁছানোর জন্য আপনার টিউন অবশ্যই র‌্যাংক করতে হয়। আর ‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ মেনে অরিজিনাল টিউন প্রকাশ করলে আপনার টিউন স্বয়ক্রিয় ভাবে র‌্যাংক করে।

এক্সক্লুসিভ, ট্রেন্ডি, ইউজার এনগেজিং টেকটিউনসে এর আগে টিউন হয়নি এমন টিউন প্রকাশ করতে হয়

টেকটিউনসে আপনার ফলোয়ার বাড়ানো ও বেশি মানুষের কাছে আপনার টিউন পৌঁছাতে ‘টিউন র‌্যাংক’ বাড়ানোর জন্য আপনাকে সর্বদা নতুন এক্সক্লুসিভ, ট্রেন্ডি, ইউজার এনগেজিং, টেকটিউনসে এর আগে টিউন হয়নি এমন টিউন প্রকাশ করতে হয়। খুবই গতানুগতিক, সাধারণ, বেসিক, ইউজার এনগেজিং নয় এমন টিউন টেকটিউনসের খুব বেশি র‌্যাংক করে না। আপনার টিউনের মান যদি Upto the Mark না হয় তবে সে টিউন গুলো টেকটিউনসের খুব বেশি র‌্যাংক করে না।

জোরপূর্বক টেকটিউনস ভিজিটরদের নিজের ব্লগ সাইট বা থার্ড পার্টি কোন সাইটে রিডাইরেক্ট না করে সঠিক ভাবে কন্টেন্ট তৈরি করা

আপনি যদি নিজের ব্লগ সাইটে কোন কন্টেন্ট লিখে সেই কন্টেন্টের আংশিক অংশ টেকটিউনসে কপিপেস্ট বাকি অংশ পড়তে জোরপূর্বক টেকটিউনস ভিজিটরদের নিজের ব্লগ সাইটে রিডাইরেক্ট করেন বা নিজের ব্লগের পূর্বের Post করা কোন কন্টেন্ট কপি করে টেকটিউনসে পেস্ট করে টিউন করেন ও টিউনের মাঝে কিছু প্যারা পর পর টেকটিউনস ভিজিটরদের নিজের ব্লগ সাইটে রিডাইরেক্ট উদ্দেশ্যে নিজের সাইটের লিংক বা নিজের ব্লগের অন্য Post  রিলেটেড টিউন হিসেবে যোগ করে টিউন করেন তবে ‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ অনুযায়ী আপনার টিউন কখনই র‌্যাংক করে না। এছাড়া একজন টিউডার/টিউজিটর কখনই টিউন পড়তে অন্য সাইটে রিডাইরেক্ট করলে সেটি টিউজারের (টেকটিউনস ইউজারের) জন্য Good Experience হয় না এবং যে টেকটিউনস ইউজারের জন্য Good Experience হয় না সে টিউন টেকটিউনসে র‌্যাংক করে না।

আপন যদি চান টেকটিউনসে টিউন প্রকাশ করে টিউন র‌্যাংক করতে সেই সাথে আপনি নিজেস্ব ব্লগেও ভিজিটর বাড়াতে তবে আপনি টেকটিউনসে এবং নিজের ব্লগে দুই জায়গাতেই ভিন্ন ভিন্ন অরিজিনাল ও এক্সক্লিসিভ টিউন প্রকাশ করুন। টেকটিউনসে আলাদা অরিজিনাল ও এক্সক্লুসিভ কন্টেন্ট প্রকাশ করুন আর আপনার ব্লগে আলাদা অরিজিনাল ও এক্সক্লুসিভ কন্টেন্ট প্রকাশ করুন। যে টিউন টেকটিউনসে করছেন সে টিউন আপনার সাইটে প্রকাশ করবেন না আবার যে টিউন আপনার সাইটে করছেন সে টিউন কখনও টেকটিউনসে প্রকাশ করবেন না। দুটি জাগাতেই স্বতন্ত্রতা বজায় রাখুন। এতে করে টেকটিউনস ইউজাররা আপনার অরিজিনালিটি পছন্দ করবে এবং একই সাথে আপনার টেকটিউনস ফলোয়ারও বৃদ্ধি পাবে এবং আপনার নিজের ব্লগ সাইটেও আলাদা অডিয়েন্স ও বৃদ্ধি পাবে।

আপনি যদি চান যে টিউডার/টিউজিটর আপনার ওয়েব সাইট ভিজিট করুক

‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ অনুযায়ী পুরো টিউনে নিজের সাইট, চ্যানেল, গ্রুপ, পেইজ এর লিংক শুধু মাত্র একবার ব্যবহার করা যায় এবং তা টিউন এর একদম শেষে সৌজন্য লিংক হিসেবে দিতে হয়।

কোন ভাবেই টিউনে শুরুতে, টিউনের মাঝে, টিউনের বিভিন্ন কিওয়ার্ডে ঘন ঘন লিংক অথবা  টিউনের মাঝে কিছু প্যারা পর পর নিজের সাইট বা থার্ডপার্টি কোন সাইটের লিংক বা ব্লগের অন্য Post, রিলেটেড Post হিসেবে যোগ করে, ইত্যাদি করে টিউনে যোগ করা যায় না।

আপনি যদি চান যে টিউডার/টিউজিটর আপনার ওয়েব সাইট বা ব্লগ সাইট ভিজিট করুক তাহলে প্রথমত ‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ মেনে সম্পূর্ণ টিউন টেকটিউনসে করুন। সেই সাথে টেকটিউনসে আলাদা অরিজিনাল ও এক্সক্লুসিভ কন্টেন্ট প্রকাশ করুন আর আপনার ব্লগে আলাদা অরিজিনাল ও এক্সক্লুসিভ কন্টেন্ট প্রকাশ করুন। যে টিউন টেকটিউনসে প্রকাশ করছেন সে টিউন আপনার সাইটে প্রকাশ করবেন না এবং যে Post আপনার সাইটে প্রকাশ করছেন সে Post কখন টেকটিউনসে প্রকাশ করবেন না। দুটি জায়গাতেই স্বতন্ত্রতা বজায় রাখুন।

এরপর নিজের সাইটের লিংক দেবার জন্য সম্পূর্ণ টিউনের শেষে ব্লককোট করে “সৌজন্যে:” লিখে সাইটের লিংক দিন এই টিউনটি মত করে যেখানে টিউডার ও টিউজিটরদের কোন প্রকার অযাচিত আকৃষ্ট না করে টিউনের শেষে; নিচে ব্লককোট করে “সৌজন্যে:” লিখে লিংক দেয়া হয়েছে।

এভাবে আপনার টিউনের টিউডার ও টিউজিটরা আপনার প্রতি পূর্ণ আস্থা ও বিশ্বাস স্থাপন করবে। আপনার টিউন র‌্যাংক করবে।

নিয়মিত টিউন প্রকাশ করা

টেকটিউনসে আপনার ফলোয়ার বাড়ানো ও বেশি মানুষের কাছে আপনার টিউন পৌঁছোনার আরেকটি বিষয় হচ্ছে ধারাবাহিক ও নিয়মিত ভাবে টিউন প্রকাশ করা। প্রতিদিন টিউন করতে পারলে তা অবশ্যই আপনার ফলো বৃদ্ধি করবে। তবে নিয়মিত বলতে প্রতিদিন নয় নিয়মিত মানে ধারাবাহিক ভাবে নিয়মিত টিউন প্রকাশ। সেটা সপ্তাহে ৫ টি টিউন হতে পারে বা সপ্তাহে ৩টি। তবে অনিয়মিত নয়। অর্থাৎ এক সপ্তাহে ১টি বা ২ টি টিউন প্রকাশ করা হলো আবার পরবর্তি ২ সপ্তাহ কোন টিউন প্রকাশই করা হলো না। যেকোন সৌশল মিডিয়ায় ফলোয়ার বাড়ানো ও বেশি মানুষের কাছে পৌঁছানোর মূল মন্ত্র হচ্ছে ধারাবাহিক ভাবে নিয়মিত কন্টেন্ট তৈরি করা। অনিয়মিত কন্টেন্ট তৈরি করলে একদিকে যেমন ফলোয়ার ধরে রাখা যায় না অন্য দিকে টিউনের Reach ও ধীরেধীরে কমে যায়।

নিজের সৌশল মিডিয়ার প্রোফাইল, বিভিন্ন গ্রুপে ও বিভিন্ন মাধ্যমে নিজের টিউন শেয়ার করা

শেয়ারিং ইজ কেয়ারিং। আপনার টিউন আপনি আপনার বিভিন্ন সৌশল মিডিয়া ও বিভিন্ন সৌশল মিডিয়ার গ্রুপে যত বেশি শেয়ার করবেন আপনার টিউন তত বেশি Reach করবে এবং তত বেশি আপনার টেকটিউনস ফলোয়ার বৃদ্ধি পাবে।

স্পন্সরড টিউন, ব্যানার এড, ভিডিও এড এর মাধ্যমে টিউন বুস্ট করে টিউন Reach ও ফলোয়ার বাড়ানো

আপনার টিউনের অর্গানিক Reach এর পাশাপাশি টেকটিউনসের স্পন্সরড টিউন বিজ্ঞাপণ, ব্যানার বিজ্ঞাপণ, ভিডিও বিজ্ঞাপণের মাধ্যমে টিউন বুস্ট করে টিউন Reach ও ফলোয়ার বাড়ানো যায়।

Techtunes ADs এর রয়েছে অনেক ফরমেটে বিজ্ঞাপণ প্রচারের সুবিধা। Techtunes ADs এর মাধ্যমে প্রায় ৫০০০ এর ও কর্পোরেট কোম্পানি, প্রতিষ্ঠান নিয়মিত তাদের বিজ্ঞাপণের মাধ্যমে প্রোডাক্ট, সার্ভিস প্রচার করে।

Techtunes ADs এ বিজ্ঞাপণ কেনার জন্য রয়েছে Techtunes BuyTechtunes Pay. Techtunes Buy ও Techtunes Pay এর মাধ্যমে  বিকাশ, রকেট, নগদ এর মাধ্যমে অথবা ব্র্যাক ব্যাংক, সিটি ব্যাংক এর মাধ্যমে BDT তে পেমেন্ট করে টেকটিউনস এর যে কোন প্রোডাক্ট কেনা যায়। এছাড়া বাংলাদেশের বাইরে থেকে পেপাল, ইন্টারন্যাশনাল ক্রেডিট কার্ড (USD) এর সাহায্যে USD তে পেমেন্ট করা যায়। এমনকি বাংলাদেশে থেকে ডুয়েল কারেন্সি ক্রেডিট কার্ড দিয়েও USD তে পেমেন্ট করেও টেকটিউনস এর সকল প্রোডাক্ট কেনা যায়।

টেকটিউনসে টিউনে লেখা ক্যারিয়ার হিসেবে নিতে চাইলে ও টেকটিউনস থেকে নিয়মিত আয় করতে চাইলে

আপনি টেকটিউনসে ট্রাসটেড টিউনার হয়ে টেকটিউনসে টিউন লেখা, ক্যারিয়ার হিসেবে নিতে পারানের ও টেকটিউনস থেকে নিয়মিত আয় করতে পারেন। ‘টেকটিউনস টিউন গাইডলাইন’ এর পাশাপাশি ‘টেকটিউনস ট্রাসটেড টিউনার গাইডলাইন’অনুযায়ী টিউন প্রকাশ করে আপনি টেকটিউনস থেকে নিয়মিত আয় করতে পারেন।

ট্রাস্টেড টিউনার হবার জন্য পরিপূর্ণভাবে আপনার প্রতিটি টিউন ‘টেকটিউনস ট্রাসটেড গাইডলাইন অনুযায়ী’ প্রকাশ করতে হয় এবং ট্রাস্টের টিউনার ব্যাজ পাওয়ার জন্য যে গাইডলাইন রয়েছে তা পরিপূর্ণভাবে মেনে আবেদন করতে হয়।

টেকটিউনস ট্রাসটেড টিউনাররা প্রতি মাসে ৩০ হাজার টাকা থেকে ২ লক্ষ টাকা পর্যন্ত পেমেন্ট পেআউট করে থাকে। নিয়মিত টিউন প্রকাশের সাথে সাথে এবং ইউজার এনগেজিং বৃদ্ধির সাথে সাথে আপনার আয়ও বাড়তে থাকে। আপনার প্রতি মাসের আয় নির্ভর করে আপনি কত বেশি পরিশ্রম, মেধা, অরিজিনাল, কোয়ালিটি পূর্ণ ও এনজেগিং কন্টেন্ট তৈরি করতে পারেন তাঁর উপর।

ট্রাসটেড টিউনার হিসেবে সকল আয় ‘টেকটিউনস ক্যাশ’ হিসেবে আর্ন ও পে-আউট হয়। ‘টেকটিউনস ক্যাশ’ এর সকল আর্ন ও পে-আউট History আপনার টিউনার প্রোফাইল এর Techtunes Cash থেকে লাইভ দেখতে পারবেন।

টেকটিউনস ট্রাস্টেড টিউনার হিসেবে প্রতি টিউন ১০০ টাকা থেকে প্রতি টিউন ২৫০০ টাকা পর্যন্ত পেমেন্ট পাওয়া যায়। প্রতি টিউনের পেমেন্ট নির্ভর করে আপনার টিউনের ৭ টি ফ্যাক্টরের উপর। মিনিমাম ১০০০ টাকা হলে টেকটিউনস ট্রাসটেড টিউনার পেমেন্ট পেআউট গাইডলাইন অনুযায়ী প্রতি মাসের ১১ থেকে ১৫ তারিখের মধ্যে ট্রাসটেড টিউনের হিসেবে আপনার টিউনার প্রোফাইলে সেট করা পে-আউট মেথড অনুযায়ী পেমেন্ট পে-আউট হয়।

‘ট্রাস্টেড টিউনারদের’ সকল টিউন গুলো দেখুন ও শিখুন এবং তাঁদের মত করে টিউন করুন

টেকটিউনসে কি ধরনের কোয়ালিটি টিউন কিভাবে করে নিজের ফলোয়ার ও জোসস বাড়াবেন তা প্র্যাকটিক্যালি শিখতে টেকটিউনস এর ‘ট্রাস্টেড টিউনারদের’ সকল টিউন গুলো দেখুন ও শিখুন এবং তাঁদের মত করে টিউন করুন।

  1. টেকটিউনস ট্রাস্টেড টিউনার ১
  2. টেকটিউনস ট্রাস্টেড টিউনার ২
  3. টেকটিউনস ট্রাস্টেড টিউনার ৩
  4. টেকটিউনস ট্রাস্টেড টিউনার ৪
  5. টেকটিউনস ট্রাস্টেড টিউনার ৫

টেকটিউনস সম্বন্ধে আরও জানুন

টেকটিউনসে টিউন করতে সঠিক ভাবে টেকটিউনস সম্বন্ধে জানুন ও টেকটিউনসে কী ধরনের টিউন করলে টিউজিটররা আপনাকে ফলো করবে আপনার টিউন পছন্দ করবে আপনার টিউনে বেশি জোসস করবে তা আয়ত্ব করুন। টেকটিউনস একটি টেকনোলজি সৌশ্‌ল নেটওয়ার্ক। আপনাকে নিজের কোয়ালিটি কন্টেন্ট এর মাধ্যমে নিজের ফলোয়ার তৈরি করত হবে কমিউনিটিতে ইনফ্লুয়েস তৈরি করতে হয়।