Walton Primo GH10 Vs Symphony Atom II: কে সেরা!

বাজেট স্মার্টফোনের কথা আসলে দেশের বাজারের  অন্যতম বিশ্বস্ত একটি নাম হচ্ছে ওয়ালটন। ওয়ালটন বিগত বহু বছর ধরে দেশের সাধারন কনজুমারের কথা বিবেচনা করে বাজারে সাশ্রয়ী মূল্যে নিয়মিত নানান মডেলের স্মার্টফোন নিয়ে আসছে। অন্যান্য দেশী-বিদেশী ব্র্যান্ড যখন বাজেটে মানসম্মত স্মার্টফোন দিতে অপারগ, ঠিক সেখানে ওয়ালটন সেই কাজটি খুব ভালভাবেই করে যাচ্ছে। এই লেখায় আমরা ওয়ালটনের সাম্প্রতিক সময়ে লঞ্চ হওয়া প্রিমো জিএইচ১০ এর সাথে সিম্ফনি এটম ২ স্মার্টফোনের তুলনা করব

অ্যান্ড্রয়েড গো হচ্ছে লাইট স্মার্টফোনের জন্য উপযোগী করে নির্মিত একটি বিশেষ স্টক অ্যান্ড্রয়েড ডিস্ট্রিবিউশন। বাজারের এন্ট্রি লেভেলের ফোন গুলোতে যদি হাই কনফিগারের অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম দেয়া হয় তাহলে সেগুলো অনেক স্লো হয়ে যায়। আর আজকের আলোচ্য স্মার্টফোন দুটিতেও থাকছে অ্যান্ড্রয়েডের গো ভার্সন। প্রিমো জিএইচ১০ স্মার্টফোনে পাবেন অ্যান্ড্রয়েড ১১ এর গো ভার্সন। অন্যদিকে, সিম্ফনি এটম ২ তে দেখা যাবে অ্যান্ড্রয়েড ১০ এর গো ভার্সন। তো নিঃসন্দেহে লেটেস্ট অ্যান্ড্রয়েড এক্সপেরিয়েন্স পেতে গেলে আপনাকে জিএইচ১০ এর দিকে যেতে হবে, আর অ্যান্ড্রয়েড ১১ বলে ওয়ালটন এখানে এগিয়ে থাকছে

নতুন ফোন কেনার ক্ষেত্রে গ্রাহকদের মাথায় একটি বিষয় থাকে যে, ডিসপ্লে বড় হওয়া চাই! আর বড় ডিসপ্লের সুবিধা অনেক… অনলাইন ক্লাস থেকে শুরু করে মিডিয়া স্ট্রিমিং এমনকি টুকটাক গেমিং, বিগ ডিসপ্লের জুড়ি নেই। জিএইচ১০ এবং এটম ২ দুটি স্মার্টফোনেই পেয়ে যাবেন ৬.৫ ইঞ্চি ডিসপ্লে। আর এখানে দুটি স্মার্টফোনেই আইপিএস ডিসপ্লে প্যানেল ব্যবহার করা হয়েছে… এই বাজেটে যা অনেক বেশি প্রশংসনীয়!

ফোন কেনার ক্ষেত্রে বাজেট যেটাই হোক ক্যামেরা কেমন সেটাই কিন্তু আমরা অনেক ভালভাবে প্রাধান্য দিয়ে থাকি। অনেক সময় ক্যামেরা কোয়ালিটি আমাদের স্মার্টফোন বাছাই করার অন্যতম মুখ্য কারন হয়ে ওঠে। প্রিমো জিএইচ ১০ স্মার্টফোনে দেখা মিলবে ৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি ক্যামেরা সহ একটি ট্রিপল ক্যামেরা সেটাপ, অন্যদিকে সিম্ফনি এটম ২ স্মার্টফোনে থাকবে ৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি ক্যামেরা সেন্সর সহ একটি ডুয়াল ক্যামেরা সেটাপ। এভাবে রিয়ার ক্যামেরার দিক থেকে ওয়ালটনই এগিয়ে থাকে। তবে ফ্রন্ট ক্যামেরায় এগিয়ে থাকবে সিম্ফনি, কেননা এটম ২ তে দেয়া হয়েছে ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট সেলফি শুটার। অন্যদিকে জিএইচ১০ এ পাওয়া যাবে ৫ মেগাপিক্সেল সেলফি শুটার, তবে এতেও স্মার্টফোনটি খুবই ডিসেন্ট পিকচার কোয়ালিটি প্রোভাইড করে থাকে।

হার্ডওয়্যারের দিক দিয়ে দুটি স্মার্টফোনই একই। স্মার্টফোন দুটিতেই পাওয়া যাবে ১.৬ গিগাহার্জ অক্টাকোর প্রসেসর, ২ জিবি র‍্যাম এবং ৩২ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ। তবে জিএইচ১০ স্মার্টফোনে একটু বেটার এক্সপেরিয়েন্স পাবেন, ফোনটির লেটেস্ট অপারেটিং সিস্টেমের জন্য। বাজেট ফোনে ব্যাটারি লাইফ বেশি থাকাটা অনেক বেশি জরুরি হয়। কেননা এই বাজেটের স্মার্টফোনের গ্রাহকরা ফোনের স্বাভাবিক ব্যাকআপ অন্তত একদিন পুরোপুরি চান। সেই দিক থেকেও স্মার্টফোন দুটি সমান অবস্থানে রয়েছে, কেনোনা ফোন দুটিতেই পাওয়া যাবে ৪০০০ এমএএইচ ব্যাটারি।

এখন আসি দামের দিকে! জিএইচ১০ এবং এটম ২ স্মার্টফোন দুটি অনেক এঙ্গেলেই একই স্পেকস অফার করে… তবে দামের দিকটা দেখে আমরা একটা সিদ্ধান্তে আসতে পারি যে, কোন স্মার্টফোনটি বেশি সাশ্রয়ী এবং কেনার মত! প্রিমো জিএইচ ১০ স্মার্টফোনের বর্তমান বাজার মূল্য ৭৫৯৯ টাকা, অন্যদিকে সিম্ফনি এটম ২ এর বাজার মূল্য ৭৭৯৯ টাকা। সুতরাং দামের দিক দিয়েও ওয়ালটন এগিয়ে… তো সব দিক বিবেচনা করে আজকের তুলনায় ওয়ালটনকেই এগিয়ে রাখা যায়। স্মার্টফোন কেনার পরের হিসেবে যদি আফটার সেলস সাপোর্টের কথা বলি, সেই দিক দিয়েও ওয়ালটন এগিয়ে। তো, নিঃসন্দেহে আপনার পছন্দের তালিকায় যদি এই দুটি স্মার্টফোন থাকে, তবে চোখ বন্ধ করে জিএইচ১০ কিনতে পারেন।

Level 1

আমি ফাহাদ ইসলাম। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 7 মাস 3 সপ্তাহ যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 11 টি টিউন ও 1 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

Thank you for the nice post ASK2ANS .

My pleasure .