ফ্রিল্যান্সিং কি? নতুনদের জন্য ফ্রিল্যান্সিং শুরু করার কিছু টিপস!

পড়াশোনা বা কর্মজীবনে কাজের পাশাপাশি যখন মানুষ বাড়তি আয়ের পথ খোঁজার চেষ্টা করে তখন প্রথম সারির আয়ের উৎস হিসেবে ফ্রিল্যান্সিং কে ধরা হয়ে থাকে। নতুনদের মনে ফ্রিল্যান্সিং কি, কিভাবে ফ্রিল্যান্সিং শুরু করা যায় এরকম বিভিন্ন ধরনের প্রশ্ন আসা স্বাভাবিক। আর এ সকল যাবতীয় প্রশ্নের উত্তর নিয়ে আমাদের আজকের এই লেখা।

এখানে আপনার শুধু দরকার একটি নির্দিষ্ট ফিল্ডে দক্ষতা অর্জন করা। ফ্রিল্যান্সিং (Freelancing) ও আউটসোর্সিং (Outsourcing) এর আওতা অনেক বড়। ফটো এডিটিং (Photo Editing) থেকে শুরু করে ভিডিও বানানো, এডিট করা (Video Editing) সহ গ্রাফিক্স ডিজাইনের সকল বিভাগই এর আওতাভুক্ত। এছাড়া ওয়েব ডিজাইন (Web design), কোডিং (Coding), এনিমেশন তৈরি (Animation Making), ব্লগিং (Blogging) সহ অনেক কাজ আপনি এখানে পেয়ে যাবেন।
ফ্রিল্যান্সিং কি (What Is Freelancing)?
ফ্রিল্যান্সিং হচ্ছে মুক্তপেশা আমরা সকলেই তা জানি। অর্থাৎ কারও অধীনে না গিয়ে মুক্তভাবে স্বাধীনভাবে কাজ করাকে ফ্রিল্যান্সিং বলা হয়। কিন্তু বর্তমানে আমরা ফ্রিল্যান্সিং বলতে অনলাইনে কাজ করাকে বুঝায়।

ফ্রিল্যান্সিং মূলত এমন একটি পেশা যেখানে আপনি ইন্টারনেটের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরনের কাজ করে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। এটি সাধারন চাকরির মতোই, কিন্তু ভিন্নতা হলো এখানে আপনি আপনার স্বাধীন মতো কাজ করতে পারবেন।

দেখা গেলো আপনার এখন কাজ করতে ইচ্ছা করছে না; আপনি করবেন না। যখন ইচ্ছা করবে তখন আবার চাইলেই করতে পারবেন। ধরাবাঁধা কোনো অফিস টাইম নেই। এরপরে এখানে আপনার নির্দিষ্ট কোনো ইমপ্লয়ার (Employer) নেই। যখন যে বায়ারের কাজ নিবেন তখন সে-ই আপনার ইমপ্লয়ার (Employer)।

সাধারন চাকরি থেকে এখানে আরেকটি বিষয়-এর ভিন্নতা আছে। সেটি হলো কাজের স্থান। ফ্রিল্যান্সিং এর নির্দিষ্ট কোনো অফিস নেই। মূলত আপনার বাড়িই হচ্ছে আপনার অফিস।
ফ্রিল্যান্সিং কত প্রকার?
ফ্রিল্যান্সিং এর কোন প্রকার ভেদ নেই। কিন্তু অনলাইনে ফ্রিল্যান্সিং এর কিছু মেইন ক্যাটাগরি রয়েছে। নিচে তা উল্লেখ করা হলো:-

  • Graphics Design
  • Digital Marketing
  • Writing & Translation
  • Video & Animation
  • Music & Audio
  • Programming & Tech
  • Business
  • Lifestyle
  • Trending

আরো জানুন:

  1. নতুনদের জন্য ফ্রিল্যান্সিং
  2. ডিজিটাল মার্কেটিং এর ভবিষ্যৎ
  3. গ্রাফিক্স ডিজাইন কি? গ্রাফিক্স ডিজাইন এর চাহিদা!
  4. ইমেইল মার্কেটিং কি?
  5. সিপিএ মার্কেটিং কি?

উপরের ফ্রিল্যান্সিং ক্যাটাগরিগুলো ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস ফাইবার থেকে নেওয়া হয়েছে।
ফ্রিল্যান্সিং এর ভবিষ্যৎ কি?
ফ্রিল্যান্সিং এর ভবিষ্যত খুব উজ্জ্বল। আপনি যদি ভাল একটি স্কিলের উপর কাজ শিখতে পারেন, তাহলে আপনি অনলাইন থেকে প্রচুর ইনকাম করতে পারবে যেটা নরমালি কোন অফিসে যেয়ে সম্ভব নয়।

এখন প্রশ্ন হচ্ছে ফ্রিল্যান্সিং এর ভবিষ্যৎ কেমন? উত্তর হচ্ছে ফ্রিল্যান্সিং এর ভবিষ্যৎ খুবই উজ্জল। এবং এর সম্ভবনা দিন দিন বাড়ছে। বিখ্যাত ম্যাগাজিন Forbes এর পরিসংখ্যান অনুযায়ী বর্তমানে ইউএসএর এক তৃতীয়াংশ পেশাজীবী হচ্ছে ফ্রিল্যন্সার, যাদের মোট সংখ্যা হচ্ছে ৫৬.৭ মিলিয়ন। ২০২০ সাল নাগাদ ইউএসএর ৫০% পেশাজীবী হবে ফ্রিল্যানসার। বর্তমানে বিশ্বের সব ফ্রিল্যন্সারেরা মিলে প্রতিদিন ৩.৮ বিলিয়ান ডলার বিশ্ব অর্থনীতিতে যোগ করছে, যেটা বছরে প্রায় ১.৭ ট্রিলিয়ন।

কাজেই বোঝা যাচ্ছে যে ফ্রিল্যান্সিং এর ভবিষ্যৎ ভাল। অনেকেই বলতে পারেন তাহলে মার্কেটপ্লেসের অবস্থা দিন দিন কেন খারাপ হচ্ছে। উত্তর হচ্ছে বিভিন্ন বাধ্যবাধকতার কারনে, মার্কেটপ্লেসের থেকে বের হয়ে বায়ারেরা স্বাধীন ভাবে কাজ করতে চাচ্ছে। তারা সরসরি ফ্রিল্যন্সারের সাথে, অথবা কোন এজেন্সির সাথে কাজ করতে বেশি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করছে। ফলে মার্কেটপ্লেসে বায়ার দিন দিন কমছে। আর নিদিষ্ট কিছু ক্যাটাগরিতে ফ্রিল্যন্সারের পরিমান অনেক বেড়ে গেছে, ফলে প্রতিযোগিতা দিন দিন বাড়ছে। আমাদের দেশের ফ্রিলান্সারদের দিকে যদি তাকাই, তবে দেখব নিদিষ্ট কিছু ক্যাটাগরিতেই আমরা বেশি কাজ করি। অথচ এসব ক্যাটাগরির বাহিরে ফ্রিল্যান্সিং এর বিশাল একটা জগত পড়ে আছে, সেদিকেও নজর দেয়া উচিৎ।

আমি আমার এক রেগুলার বায়ারের সাথে গত চার বছর ধরে কাজ করছি। কাজের সুবিধার জন্য এখন সরাসরি তার টিমের সাথে Slack (মেসেজিং সফটওয়্যার) এর মাধ্যমে কাজ করছি। মজার ব্যাপার হচ্ছে তার মোট ১০ জন এমপ্লয়ির মধ্যে, একমাত্র আমিই মার্কেটপ্লেসে কাজ করি। বাকিরা বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে থেকে তার সাথে কাজ করে, সরাসরি পেমেন্ট নেয়। এই ধরনের কাজের স্টাইল এখন বেশি দেখা যায়। তাই আমার মতে মার্কেটপ্লেসের পাশাপাশি সবার উচিৎ কাজের বিশাল জগৎটাকে আবিস্কার করার চেষ্টা করা। ফ্রিল্যান্সিং এর ভবিষ্যৎ যেহেতু খুবই ভাল, তাই নিজেকে আপগ্রেড করে, সময়ের সাথে তাল মিলাতে হবে, আর তাহলেই ফ্রিলান্সিংএ ভাল করা এবং দীর্ঘদিন টিকে থাকা অনেক সহজ হবে।
ফ্রিল্যান্সিং এর কোন কাজটি দ্রুত শেখা যায়?
ফ্রিল্যান্সিং এর সবচেয়ে দ্রুত এবং সহজে শেখার যে ক্যাটাগরিতে রয়েছে সেটা হচ্ছে রাইটিং ডিজিটাল মার্কেটিং ইত্যাদি।
ফ্রিল্যান্সিং এ কোন কাজ শিখলে বেশি টাকা পাওয়া যায়?
যে ক্যাটাগরিতে প্রতিদ্বন্দ্বী খুবই কম এবং শিখতে অনেক কঠিন। সেই ক্যাটাগরিতে কাজ শিখলে আপনি অনেক বেশি ইনকাম করতে পারবেন।
ফ্রিল্যান্সিং এ দ্রুত সফল হতে করণীয় কি?
ফ্রিল্যান্সিং এ দ্রুত সফল হওয়ার জন্য আপনার দুইটা টিপস ফলো করতে হবে।

  1. ভালোভাবে কাজ শেখা।
  2. ভালো কমিউনিকেশন দক্ষতা।

অবশ্যই ভালো কমিউনিকেশন দক্ষতা বলতে ভালো ইংরেজি বলতে পারে আমি বোঝাচ্ছি না।
ফ্রিল্যান্সিং এর জন্যে ডেক্সটপ বা ল্যাপটপ কোনটা নিব?
আপনি কোন ধরনের কাজ শিখবেন তার ওপর ভিত্তি করে আপনি সিদ্ধান্ত নিবেন আপনি ল্যাপটপ না ডেক্সটপ কিনবেন।
ফ্রিতে ফ্রিল্যান্সিং কোথা থেকে শিখব?
ফ্রিতে ফ্রিল্যান্সিং এর জন্য আপনাকে অবশ্যই গুগল এবং ইউটিউব এর উপর নির্ভর করতে হবে। আপনি আগের সিদ্ধান্ত নেন আপনি কোন কাজ শিখবেন? তারপরে আপনি সেই কাজের ওপর ভিডিও step-by-step সার্চ করুন তাহলেই পেয়ে যাবেন।
ফ্রিল্যান্সিং এ কোন মার্কেটপ্লেসকে শুরু করব?
তিনটি জনপ্রিয় মার্কেটপ্লেস Fiverr, Upwork, Freelancer থেকে যেকোন একটিতে কাজ করা উচিত। তবে নতুন অবস্থায় আপনাকে অবশ্যই ফাইবারের কাজ করা উচিত।

Level 2

আমি Freelancer Sabbir। Senior Web Developer, Jessore। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 4 বছর 10 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 16 টি টিউন ও 5 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

User experience designer based in Bangladesh. I am Sabbir Hossain from Jessore, Bangladesh offering you a very low cost effective high quality professional custom website


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস