গুগল এবং অ্যামাজনের ২ টি আইওটি ডিভাইস – আপনার স্মার্ট পার্সোনাল এসিস্ট্যান্স!

টিউন বিভাগ আইওটি
প্রকাশিত
জোসস করেছেন
Level 2
Student, ইনস্টিটিউশন অফ ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (আইইবি), ঢাকা

টেকটিউনস বন্ধুরা আসসালামু-আলাইকুম কেমন আছেন সবাই? আশাকরি মহান আল্লাহর রহমতে সবাই ভাল আছেন আমিও ভাল আছি আপনাদের দোয়াই। এর আগে আমি ইন্টারনেট অফ থিংস বা আইওটি নিয়ে টিউন করেছিলাম সেখানে একটি IOT System কিভাবে কাজ করে, মানুষের দৈনন্দিন জীবনকে কিভাবে সহজ, সুন্দর, পারফেক্ট এবং সুপার স্মার্ট করে তুলে তাই নিয়ে লিখেছিলাম। আগামীর পৃথিবী আইওটি নির্ভর হতে যাচ্ছে। আমাদের সকল কিছু সকল জিনিষপত্র আইওটি প্রযুক্তি সম্পন্ন হয়ে যাবে। সময়ের প্রয়োজনে আজ হোক কাল হোক আমাদের সকল ডিভাইস স্মার্ট বুদ্ধিমান হয়ে যাবে।

সারা বিশ্বে Internet Of Things (IOT) নিয়ে পুরো-দমে গবেষণা চলছে। বড় বড় টেক জায়ান্টরা অলরেডি বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা সম্পন্ন IOT Device প্রযুক্তি প্রেমীদের জন্য বাজারে নিয়ে এসেছে। চমকপ্রদ সব ফিচার আছে সেই ডিভাইসগুলোতে। গুগল, আমাজনসহ শীর্ষ প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠাগুলো তাদের নিজস্ব প্রযুক্তিতে তৈরি অনেক গুলো আইওটি ডিভাইস বাজারে রিলিজ করেছে। তার মধ্য থেকে বাছায় করা ২ টি আইওটি ডিভাইস নিয়ে আলোচনা করব আজকের টিউনে। তাহলে চলুন আমরা ২ টি আইওটি ডিভাইস সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নিই।

Google Nest

গুগল হোম ভয়েস কন্ট্রোলার একটি স্মার্ট স্পিকার যাকে সবাই গুগল হোম বলে চিনত। গুগল হোম ২০১৬ সালে রিলিজ হয়। গুগল হোম ছিল স্মার্ট ভয়েস কন্ট্রোলিং আইওটি সাপোর্টেড স্পিকার, যা ইউজারের ভয়েস কমান্ড বুঝতে পারত। ইউজার এটার মাধ্যমে গান শুনতে পারত সেই সাথে মিউজিক এবং ভিডিও কন্ট্রোল করতে পারত। গুগল হোম আরও কিছু কাজ করতে পারত যেমন আপনার বাসার স্মার্ট লাইটসহ সকল স্মার্ট যন্ত্রপাতি শুধু মাত্র ইউজারের ভয়েস কমান্ডের মাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ করতে পারত।

তবে সময়ের সাথে সাথে গুগল তার গুগল হোমকে নতুন রূপে রি-ব্রান্ড করে। ২০১৯ সালে গুগল তার গুগল হোম কে গুগল নেস্ট হিসাবে নতুন ভাবে ব্রান্ডিং করে। এরপর এর নতুন নাম হয় গুগল নেস্ট। গুগল নেস্ট এ গুগল হোমের সকল ফিচারই আছে সাথে আরও কিছু নতুন ফিচার যুক্ত করা হয়েছে। গুগল নেস্ট এর প্রধান পরিবর্তন হল প্রায় প্রত্যেকটি Google Nest সাথে 7 INCH টাচ স্ক্রিন ডিসপ্লে যুক্ত করা হয়েছে যা ইউজারকে স্মার্ট স্পিকারের সাথে ইন্টার-অ্যাক্ট করার সুবিধা দেয়। ইউজারের প্রশ্ন এবং কমান্ড অনুযায়ী প্রতিক্রিয়া দেখাতে পারে। ভিডিও কল এবং সিকিউরিটি ক্যামেরা নিয়ন্ত্রণের সুযোগ দেই।

Google Nest শুধু একটি একক ডিভাইস না, বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা এবং ফিচার যুক্ত আরও ডিভাইস আছে যাদের কে একত্রে Google Nest বলে। যেমন Nest Aware, Nest Cam (Indoor, Outdoor), Nest Thermostat, Nest WIFI Pro, Nest Hub, Nest Doorbell, Nest Audio etc. একটি স্মার্ট হোম তৈরি করার জন্য যা যা দরকার প্রায় সবই Google Nest এর এই সকল ডিভাইস দিয়ে করা সম্ভব। গুগল নেস্ট এর সকল ডিভাইস একে অপরের সাথে আইওটি সিস্টেম এর মাধ্যমে যুক্ত থাকে। হোম অটোমেশনের জন্য ব্যবহৃত যন্ত্রপাতি গুলোও এটা নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। গুগল তার গুগল হোম কে পরিবর্তন করে গুগল নেস্ট করলেও তার অ্যাপ কে গুগল হোম হিসাবেই রেখেছে। গুগল নেস্ট বা গুগল হোম অটোমেশনের জন্য ডিভাইস গুলোর সকল কনফিগার এবং ইন্সটলেশনের জন্য Google Home App এর সাহায্যেই করতে হয়। গুগল নেস্ট এর সকল ডিভাইসই ইউজারের ভয়েস কমান্ডে চলে। ইউজারের সকল ভয়েস কমান্ড অনুযায়ী প্রতিক্রিয়া দেখাতে পারে, গান প্লে করতে পারে, লাইট কন্ট্রোল করতে পারে। বাসায় যদি আরও অন্য কোন স্মার্ট ডিভাইস বা যন্ত্রপাতি থাকে সেগুলোও নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। আসলে Google Nest আপনার একটি স্মার্ট পার্সোনাল এসিস্ট্যান্স। বিশ্বস্ত সঙ্গীর মতো আপনাকে আপনার কমান্ড অনুযায়ী সহযোগিতা করবে। আপনার হোম অটোমেশনের সকল ডিভাইসগুলোকে আপনি গুগল নেস্ট এর মাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন শুধুমাত্র ভয়েস কমান্ড ব্যবহার করে। এটি আপনার পার্সোনাল এসিস্ট্যান্টের মতই আপনার জীবন কে সহজ করে করে তুলবে যা আপনার লাইফকে করে তুলবে সুপারস্মার্ট!

গুগল নেস্ট এর সুবিধাসমূহ হল:

১. আপনাকে মিডিয়া বা প্লেয়ার ইউজ করে মিউজিক এবং গান শুনাতে পারবে।

২. আপনার টিভি এবং সাউন্ড শোনার জন্য স্পিকার নিয়ন্ত্রণের সুবিধা দিবে।

৩. এই ডিভাইসটি টাইমার এবং এলার্ম ম্যানেজ করার ক্ষমতা রাখে।

৪. গুগল ভয়েস কন্ট্রোলিং সিস্টেম দূর থেকে ভলিউম এবং ঘরের লাইট নিয়ন্ত্রণের সুবিধা দিয়ে থাকে।

৫. আপনার প্রতিদিনের প্লান প্রোগ্রাম তৈরি করতে সাহায্য করবে এবং সেই অনুযায়ী সেগুলো বাস্তবায়ন করতে পারবে।

৬. আপনার বাসার সকল স্মার্ট ডিভাইস কে গুগল নেস্ট এর সাথে পেয়ার করতে পারবেন যাতে এই ডিভাইসকে নেস্ট এর মাধ্যমে ভয়েস কমান্ড দিয়েই নিয়ন্ত্রণ করতে পারেন।

গুগল নেস্ট ডিভাইসটি google store, Flipkart, eBay, dell.com, google express and Verizon etc থেকে কিনতে পাওয়া যায়। এটা বাংলাদেশ থেকে বাংলাদেশী টাকায় ক্রয় করা সম্ভব না। আপনাকে ডলার কিনে তারপর এটা কিনতে হবে।

Google Nest

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট @ Google Nest

Amazon Echo Plus Voice Controller

আমাজন ইকো প্লাস ভয়েস কন্ট্রোলার একটি ভয়েস কমান্ড ব্যবহার করার সুবিধা সম্পন্ন আইওটি ডিভাইস। অ্যামাজনের এই ডিভাইসটি অনেক বিশ্বস্ত এবং জনপ্রিয় প্রযুক্তিপ্রেমিদের কাছে। যারা গান শুনতে পছন্দ করে এটি তাদের জন্য গান প্লে করতে পারে। এমনকি আপনার জন্য এটি ফোনের মতো কল করার সুবিধা দিবে। আপনার সময় নষ্ট যাতে না হয় সেই জন্য এই আইওটি ডিভাইসটি আপনার জন্য সঠিক টাইমার সেটিং করবে এবং প্রয়োজন মতো এলার্ম দিয়ে রাখবে। এটি প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করতে পারে তথ্য কালেক্ট করে জানিয়ে দিতে পারে।

আপনার এলাকার আবহাওয়া আজকে কেমন যাবে এবং বর্তমানে আবহাওয়ার কি অবস্থা তা অনলাইন থেকে কালেক্ট করে আপনাকে জানিয়ে দিতে পারবে। আপনার দৈনন্দিন করণীয় কি তার লিস্ট রাখতে পারবে এবং শপিং লিস্ট করতে পারবে। এছাড়া আমাজনের এই ইকো প্লাস ভয়েস কন্ট্রোলিং সিস্টেম আপনার বাসার বিভিন্ন ইনস্ট্রুমেন্টস এবং সর্বোপরি অন্যান্য জিনিষপত্র ম্যানেজ করতে পারবে। এই ডিভাইসটি যেহেতু ভয়েস কমান্ড সুবিধা দিয়ে থাকে তাই আপনি কোন রকম নড়াচড়া করা বা মুভ করা বাদে শুধুমাত্র ভয়েস কমান্ড দিয়েই সকল কাজ করতে পারবেন।

আমাজন ইকো প্লাস ভয়েস কন্ট্রোলিং এর ফিচারসমূহ:

১. আমাজন ইকো ভয়েস কন্ট্রোলিং আপনার জন্য গান প্লে করতে পারবে, আলাদা লাউড স্পিকার কানেক্ট করতে পারবে এবং হেড-ফোন কানেক্ট করতে পারবে।

২. এটা শুধুমাত্র ভয়েস কমান্ডের মাধ্যমে কল করতে পারবে এবং মেসেজ সেন্ড করতে পারবে।

৩.  আমাজন ইকো প্লাস এর ৬-৭ টি মাইক্রোফোন আছে, ভালমানের নির্দিষ্ট প্রযুক্তিগত সুবিধা বা বৈশিষ্ট্য আছে, সাউন্ড বাতিল-করণ সুবিধা আছে। যখন এটি গান প্লে করা অবস্থায় থাকে তখনও এটি আপনার যে কোন রকমের যে কোন সাইড থেকে ভয়েস কমান্ড বুঝতে পারে এবং সেই অনুযায়ী কাজ করতে পারে।

৪. আপনার বাসার বিভিন্ন ডিভাইস যেমন লাইট, প্লাগ ইত্যাদি নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষমতা রাখে।

এই ডিভাইসটি বাজার মূল্য ৯৯.৯৯ ডলার।

Amazon Echo Plus Voice Controller

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট @ Amazon Echo Plus Voice Controller

শেষ কথা

আজকের টিউনে আমি দুইটি আইওটি ডিভাইস নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছি। ডিভাইস দুইটি ভয়েস কন্ট্রোলিং সিস্টেমে চলে। গুগল এবং আমাজন দুই প্রতিষ্ঠানই নামকরা জনপ্রিয় টেক কোম্পানি। এই দুটি কোম্পানিই আইওটি ডিভাইস নিয়ে অনেক আগে থেকেই গবেষণা করে চলেছে। ইদানীং তারা ভয়েস কমান্ডিং আইওটি ডিভাইস দুটি বাজারে নিয়ে এসেছে প্রযুক্তি প্রেমীদের জন্য।

যেহেতু এই ডিভাইস দুটি ভয়েস কমান্ডিং সিস্টেমে চলে অনেকে মনে করবে এগুলো বুঝি সাধারণ ভয়েস কমান্ড সিস্টেম ডিভাইস। এগুলো কিন্তু নেটওয়ার্কের সাথে যুক্ত হতে পারে। গ্রাহকের সাথে ডিভাইসগুলো যোগাযোগ রাখতে পারে। এবং এগুলো উচ্চ প্রযুক্তি সম্পন্ন আইওটি ডিভাইস। তো আজ এখানেই শেষ করি দেখা হবে পরবর্তী কোন টিউনে সে পর্যন্ত সবাই ভাল থাকবেন আল্লাহ হাফেজ।

Level 2

আমি মো সাদ্দাম হোসাইন। Student, ইনস্টিটিউশন অফ ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (আইইবি), ঢাকা। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 1 বছর 6 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 19 টি টিউন ও 5 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 2 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 1 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস