ই-কমার্স ব্যবসা শুরু করার পূর্বে যে কর্মী গুলো অবশ্যই প্রয়োজন

ই-কমার্স ব্যবসা বর্তমান সময়ে একটি প্রতিযোগী মূলক ব্যবসা এই ব্যবসায় হঠাৎ করেই অনেক লোকের আগমন হয়। তবে ছয় মাসের বেশি কেউ টিকতে পারছে না তার মূল কারন হচ্ছে পরিকল্পনা তা ছাড়াও আরও বেশ কিছু কারণ রয়েছে যেগুলো নিয়ে আপনাদের সামনে পরবর্তীতে আলোচনা করবো। আজকে আমরা আলোচনা করব ই-কমার্স ব্যবসা করার পূর্বে যে কজন কর্মী আপনাকে অবশ্যই নিয়োগ দিতে হবে।

১.গ্রাফিক্স ডিজাইনার: একমাত্র একজন গ্রাফিক্স ডিজাইনার পারে আপনার ব্যবসাকে ব্র্যান্ডিং করতে। বলা হয়ে থাকে ই কমার্স ব্যবসা যে পরিমাণ সেলিং হয়ে থাকে তার প্রায় 20% গ্রাফিক্স ডিজাইন এর কারণে হয়ে থাকে অনেকেই বলতে পারেন গ্রাফিক ডিজাইন আবার কি করে ব্যবসা বৃদ্ধি করতে পারে। হ্যাঁ অবশ্যই গ্রাফিক্স ডিজাইন ব্যবসা বৃদ্ধি করতে পারে। আপনি একটু চিন্তা করুন যদি প্রথম দেখাতেই আপনার কাউকে ভালো না লাগে তাহলে আপনি তার ব্যাপারে জানতে আগ্রহ প্রকাশ করবেন না ঠিক তেমনি গ্রাফিক ডিজাইন এর মাধ্যমে আপনার প্রোডাক্টের ছবি খুব সুন্দর ভাবে উপস্থাপন করা হবে যেন প্রথম দেখাতেই একজন ক্রেতা আপনার প্রোডাক্ট পছন্দ করে এবং সেই সম্পর্কে জানতে আগ্রহ প্রকাশ করে আশা করছি আপনি বুঝতে পেরেছেন একজন গ্রাফিক ডিজাইনারের গুরুত্ব কতটা

২.ডিজিটাল মার্কেটিং: বলা হয়ে থাকে ই-কমার্স ব্যবসা যত সেলিং হয় তার প্রায় 85% বিক্রি হয়ে থাকে এই ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে বর্তমান সময়ে ডিজিটাল মার্কেটিং ছাড়া কোন ধরনের প্রোডাক্ট বিক্রি করার কথ চিন্তাও করা যায় না তাহলে একবার ভেবে দেখুন একজন ডিজিটাল মার্কেটিং ব্যক্তির কতটা গুরুত্ব। ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে আরো বিস্তারিত ভাবে পরবর্তীতে আলোচনা করব যেন আপনার সহজে বুঝতে পারেন ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে কি পরিমান পণ্য বিক্রি করা সম্ভব।

৩.ওয়েবসাইট ম্যানেজমেন্ট: ই-কমার্স মানে হচ্ছে অনলাইনে বিজনেস করা আর অনলাইনে বিজনেস করতে হলে আপনাকে অবশ্যই একটি ভালো মানের ইউজার ফ্রেন্ডলি ওয়েবসাইট তৈরি করতে হবে। একটি ব্যবসা করার জন্য যেমন আপনার একটি দোকান প্রয়োজন ঠিক তেমনি অনলাইনে ব্যবসা পরিচালনা করার জন্য একটি ওয়েবসাইটের বিকল্প আর কিছু নেই। তাই অবশ্যই ই-কমার্স ব্যবসা করার পূর্বে ভালো মানের একটি ওয়েবসাইট তৈরি করে নিতে হবে। বর্তমানে সারাবিশ্বে ই-কমার্স ওয়েবসাইট তৈরীর জন্য ওয়ার্ডপ্রেস, শপিফাই, ম্যাজেন্টো, লারাভেল জনপ্রিয় তবে এর মধ্যে ওয়ার্ডপ্রেস সব থেকে বেশি জনপ্রিয় প্রাথমিক অবস্থায় ব্যবসা করার জন্য আপনি ওয়ার্ডপ্রেস দিয়ে একটি ওয়েবসাইট তৈরি করে নিতে পারেন কারন এটি ব্যবহার করা খুবই সহজ। ব্যবসা বৃদ্ধির তবে সাথে সাথে আপনাকে অবশ্যই ভালো মানের ওয়েবসাইট তৈরি করতে হবে। তখন আর আপনি ওয়ার্ডপ্রেস দিয়ে ভালোভাবে কাজ চালাতে পারবেন না যাই হোক ওয়েবসাইট নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা অন্য একদিন করব। আপনারা কোন ধরনের ওয়েবসাইট তৈরি করবেন। তবে ব্যবসা করার জন্য ওয়েবসাইট সম্পর্কে জানা এবং বুঝে এমন একজন ব্যক্তি অবশ্যই আপনার প্রয়োজন হবে। কারণ ওয়েবসাইটের মধ্যে অনেক কাজ থাকে যেগুলো আপনি পারলে ভালো আর নিজে না পারলে অবশ্যই একজন কর্মী আপনাকে নিয়োগ দিতে হবে।

 

প্রাথমিক অবস্থায় ই-কমার্স ব্যবসা পরিচালনা করার জন্য এই ক’জন কর্মী নিয়োগ দিয়ে ব্যবসা করলে আশা করছি খুব দ্রুত ব্যবসা সাফল্য লাভ করবেন। তবে হ্যাঁ আপনি যদি উপরের কাজগুলো নিজেই পারেন তাহলে কোন ধরনের কর্মী প্রয়োজন হবে না তবে আমার নিজের অভিজ্ঞতা থেকে এতটুকু বলতে পারি যে ই-কমার্স ব্যবসা পরিচালনা করার জন্য প্রথম থেকেই নিজে নিজে সকল ধরনের কাজ করা সম্ভব না।

Level 1

আমি খাইরুল আলম। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 5 বছর 3 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 4 টি টিউন ও 0 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 1 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস