পাসওয়ার্ড ম্যানেজার কি এবং পাসওয়ার্ড ম্যানেজার এর কাজ

Level 28
সুপ্রিম টিউনার, টেকটিউনস, ঢাকা

আসসালামু আলাইকুম, কেমন আছেন সবাই? আশা করছি সবাই ভাল আছেন। আজকে আবার হাজির হলাম নতুন টিউন নিয়ে।

শুরুর কথাঃ

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার হচ্ছে একটি নিরাপদ ডিজিটাল লকার, যেখানে আপনার অনলাইনের সকল লগইন ইনফরমেশন সংরক্ষিত থাকবে। ইন্টারনেটে নিরাপদ থাকতে আমাদের উচিত ভিন্ন ভিন্ন ক্ষেত্রে ভিন্ন ভিন্ন পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা। যদি আপনার ফেসবুকের পাসওয়ার্ড, জিমেইলের পাসওয়ার্ড, ব্যাংক ইনফরমেশন এক হয় তাহলে হ্যাকারদের কাছে যেকোনো সময় আপনার নিরাপত্তা লঙ্ঘিত হতে পারে। যেমন একটি পাসওয়ার্ড লিক হলে বাকি গুলোও তাদের হাতে চলে যাবে। আর এজন্য উচিত প্রতিটি ক্ষেত্রে ইউনিক এবং আলাদা পাসওয়ার্ড ব্যবহার নিশ্চিত করা। স্বাভাবিক ভাবেই মানুষের পক্ষে অনেক বেশি ইউজার নেম, পাসওয়ার্ড মনে রাখা সম্ভব না, তাই এই মনে রাখার কাজটি করে পাসওয়ার্ড ম্যানেজার।

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার কি?

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার হচ্ছে মূলত একধরণের সফটওয়ার যা অনলাইনে বা অফলাইনে লগইন ইনফরমেশন সংরক্ষণ করার জন্য তৈরি করা হয়। ইউজাররা নির্দিষ্ট ওয়েবসাইটের পাসওয়ার্ড সেভ রাখলে, লগইন করার সময় সেগুলো সামনে চলে আসে। আপনি পাসওয়ার্ড ম্যানেজার ব্যবহার করে ২০ টিরও বেশি একাউন্টের পাসওয়ার্ড সেভ করে রাখতে পারবেন।

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার থাকলে আপনাকে প্রতিটি একাউন্টের পাসওয়ার্ড মনে রাখতে হবে না, শুধুমাত্র পাসওয়ার্ড ম্যানেজারের জন্য একটি মাস্টার পাসওয়ার্ড মনে রাখলেই হবে।

পাসওয়ার্ড ম্যানেজারের আরেকটি সুবিধা হল এটি আপনার জন্য সিকিউর পাসওয়ার্ড তৈরি করতে পারবে যা ক্র‍্যাক করা প্রায় অসম্ভব। কিছু কিছু পাসওয়ার্ড ম্যানেজার আপনাকে ফিশিং এর হাত থেকেও বাচাতে পারে। আপনি যখন কোন ফিশিং ওয়েবসাইটে গিয়ে লগইন করতে চাইবেন তখন পাসওয়ার্ড ম্যানেজার আপনাকে ওয়ার্নিং দেবে।

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার এর সুবিধা

হয়তো আর নতুন করে বলার দরকার নেই, আপনার লগইন ডিটেলের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করবে পাসওয়ার্ড ম্যানেজার। তাছাড়া আপনি যখন থাকবেন না তখন এই পাসওয়ার্ড ম্যানেজারের এক্সেস নিয়ে আপনার কাছের মানুষজন, আপনার সোশ্যাল মিডিয়া একাউন্ট গুলো বন্ধ করতে পারবে।

পরিবারের সদস্যারা বিভিন্ন প্রয়োজনে আপনার ক্রেডিট কার্ড ইনফরমেশন, বিভিন্ন ব্যাংক এর লগইন ডিটেল ইত্যাদি, ব্যবহারের সুযোগ পাবে।

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার কিভাবে কাজ করে

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার হচ্ছে একধরনের অনলাইন Vault যেখানে আপনার পাসওয়ার্ড গুলো সংরক্ষিত থাকবে এবং একটি মাত্র মাস্টার পাসওয়ার্ড দিয়ে এটির এক্সেস পাওয়া যাবে। তাছাড়া ইউজাররা চাইলে নিরাপত্তা বাড়াতে ফিঙার প্রিন্ট সিকিউরিটিও যোগ করতে পারে। তো পাসওয়ার্ড ম্যানেজার কতটা নিরাপদ এটা নির্ভর করবে আপনি কতটা শক্তিশালী নিরাপত্তা দিচ্ছেন।

লোকাল অথবা ক্লাউড পাসওয়ার্ড ম্যানেজার

পাসওয়ার্ড ম্যানেজার দুই ধরনের হতে পারে, লোকাল অথবা ক্লাউড। লোকাল পাসওয়ার্ড ম্যানেজার গুলো আপনার ডিভাইসে অফলাইনে ইন্সটল করা থাকবে। আপনার পাসওয়ার্ড গুলো বিশেষ ভাবে এনক্রিপশন করে সংরক্ষণ করবে। এর সুবিধা হল যেহেতু এটা অফলাইনে সেভ থাকবে সুতরাং এখানে হ্যাকার কোন ভাবেই এক্সেস পাবে না।

তবে এর অসুবিধা হল আপনার অন্য ডিভাইস গুলোতে পাসওয়ার্ডের এক্সেস পাবেন না, প্রতিবার মূল ডিভাইস থেকে পাসওয়ার্ড ব্যবহার করতে হবে। বড় সমস্যা হল কোন কারণ আপনার হার্ডডিস্ক ক্রাশ করলে সব তথ্য চলে যেতে পারে।

অন্যদিকে ক্লাউড ভিত্তিক পাসওয়ার্ড ম্যানেজারের সকল তথ্য ক্লাউডে সংরক্ষিত থাকে। বড় সুবিধা হচ্ছে যেকোনো সময়, যেকোনো ডিভাইস থেকে এক্সেস নেয়া যায়। আর এই কারণে বর্তমানে ক্লাউড ভিত্তিক পাসওয়ার্ড ম্যানেজার বেশি জনপ্রিয়।

সিকিউরিটির কথা বলতে গেলে বেশিরভাগ পাসওয়ার্ড ম্যানেজার গুলো, এনক্রিপশন এবং ডিক্রিপশনে 256-bit AES প্রোটোকল ব্যবহার করে৷ আর এটি বর্তমান সময়ের সবচেয়ে সিকিউর একটি প্রোটোকল। অনেক পাসওয়ার্ড ম্যানেজার AES 128-bit প্রোটোকল, (যা কিছুটা দুর্বল) ব্যবহার করলেও সেটাও যেকোনো Brute-Force এটাককে প্রতিহত করার জন্য যথেষ্ট।

বিভিন্ন প্রিমিয়াম মানের পাসওয়ার্ড ম্যানেজার আরও এডভান্স মানের সিকিউরিটি যেমন, XChaCha20 ব্যবহার করে ইউজারদের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পারে। NordPass পাসওয়ার্ড ম্যানেজারটি XChaCha20 সিকিউরিটি ব্যবহার করে।

ভাল পাসওয়ার্ড ম্যানেজার কোনটি?

বর্তমান সময়ের প্রিমিয়াম এবং ফ্রি পাসওয়ার্ড ম্যানেজার হিসেবে জনপ্রিয় কিছু নাম হল, NordPass, KeePass, LastPass, এবং 1 Password।

ফ্রিতে ব্যবহারের জন্য রয়েছে একাধিক ভাল মানের পাসওয়ার্ড ম্যানেজার, যেমন এখন পর্যন্ত ফ্রি পাসওয়ার্ড ম্যানেজারের মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় LastPass।

LastPass সাম্প্রতিক সময়ে কিছু পরিবর্তন নিয়ে এসেছে যেমন এখন ফ্রি ভার্সনে একটির বেশি ডিভাইস ব্যবহার করা যাবে না। একাধিক ডিভাইসে ব্যবহারের জন্য ইউজারের ফ্যামিলি একাউন্ট অথবা প্রিমিয়াম একাউন্ট থাকতে হবে।

শেষ কথাঃ

হয়তো একজন মানুষের পক্ষে ১০ টি অথবা ২০ টি একাউন্টের পাসওয়ার্ড মনে রাখা সম্ভব কিন্তু এর বেশি হলেই পড়তে হয় ঝামেলায়। আর এই ধরনের ঝামেলার সমাধান দিতে পারবে একমাত্র পাসওয়ার্ড ম্যানেজার। পাসওয়ার্ড ম্যানেজার শুধু মাত্র ইউজারদের পাসওয়ার্ডই মনে করিয়ে দেয় না, যুক্ত করে একাধিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

আজকে এতটুকুই, পরবর্তী টিউন পর্যন্ত ভাল থাকুন, আল্লাহ হাফেজ।

Level 28

আমি সোহানুর রহমান। সুপ্রিম টিউনার, টেকটিউনস, ঢাকা। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 7 বছর 7 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 475 টি টিউন ও 186 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 56 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

কখনো কখনো প্রজাপতির ডানা ঝাপটানোর মত ঘটনা পুরো পৃথিবী বদলে দিতে পারে।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস