ইমোশন রিকগনিশন সিস্টেম কি? খেলুন ইমোশন রিকগনিশন গেম

Level 28
সুপ্রিম টিউনার, টেকটিউনস, ঢাকা

আসসালামু আলাইকুম, কেমন আছেন সবাই? আশা করছি সবাই ভাল আছেন। আজকে আবার হাজির হলাম নতুন টিউন নিয়ে।

আপনি কি নিজের ইমোশন লুকাতে পারেন অথবা আপনি মনে করেন, AI বুঝতে পারবে না আপনি কোন মুডে আছেন? তাহলে চলুন একটা গেম খেলা যাক। দেখা যাক আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স আসলে এটি পারে কিনা।

ইমোশন রিকগনিশন সিস্টেম কি?

একদল সমাজ বিজ্ঞানী এমন একটি গেম তৈরি করেছে যেখানে, আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স আপনার ফেসিয়াল এক্সপ্রেশন দেখেই আপনার ইমোশন বুঝতে পারবে। এই প্রযুক্তিকে তারা ইমোশন রিকগনিশন সিস্টেম বলে উল্লেখ করেছেন।

আমরা জানি দিন দিন আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স আরও বেশি সমৃদ্ধ হচ্ছে। এখন আর্টিফিয়াল ইন্টেলিজেন্স ব্যবহার করে বিভিন্ন কোম্পানি কেবল মানুষকেই সনাক্ত করবে না, একই সাথে তাদের আবেগ সম্পর্কেও ধারণা লাভ করতে পারবে।

আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এর এই ধারণাটি বিভিন্ন ক্ষেত্রে ব্যবহৃত হতে পারে। বিশেষ করে এটি ব্যবহৃত হতে পারে অনলাইন শপিং এর ক্ষেত্রে৷ আপনি যখন এই AI এনেভল করে কোন অনলাইন শপিং স্টোরে লগইন করবেন, তখন এটি খেয়াল করবে কোন পণ্য থেকে আপনার কেমন অনুভূতি হচ্ছে। আপনার আগ্রহ বা আবেগ বুঝতে এটি ফেসিয়াল এক্সপ্রেশন গুলো ডিটেক্ট করবে। কোন পণ্য সম্পর্কে আপনার ইতিবাচক ইমোশন পেলে পরবর্তীতে এটি সেই ধরনের পণ্য সাজেস্ট করবে। যেহেতু এই প্রযুক্তিটি এখনো আসে নি সুতরাং বিজ্ঞানীরা এটি নিয়ে কাজ করছে।

Dovetail নামে একজন ডেভেলপার জানিয়েছে বিষয়টি সম্পর্কে মানুষকে আগে থেকে অবহিত করতেই তারা এই গেমটি নিয়ে এসেছেন। তিনি বলেন, "আমরা ইমোশন রিকগনিশন সিস্টেম নিয়ে মানুষকে জানাতে চাই, এই প্রযুক্তি কিভাবে কাজ করে এবং সমাজে এর প্রভাব কতটা সেটা তুলে ধরতে চাই। "

তিনি আরও বলেন, আমাদের লক্ষ্য হচ্ছে মানুষ এটা সম্পর্কে জানুক এবং জনগণ এটা ব্যবহারের মাধ্যমে এর ডেভেলপমেন্টে অংশগ্রহণ করুক"।

ইমোশনাল রিকগনিশন গেম

এখন পর্যন্ত আপনি গেমটি খেলতে পারবেন। আপনি emojify.info, ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর একটি হলুদ পেজ দেখতে পাবেন। Enter এ ক্লিক করে আপনি দুইটি গেম, Wink/blink এবং Fake Smile দেখতে পাবেন।

কিভাবে কাজ করেনঃ ইমোশনাল রিকগনিশন সিস্টেম টুলটি কাজ করার জন্য আপনাকে অবশ্যই ক্যামেরা পারমিশন দিতে হবে। টুলটির মধ্যে আপনাকে Happiness, Sadness, Fear, Surprise, Disgust এবং Anger এর মত এক্সপ্রেশন শো করতে বলা হবে। আপনি যেকোনো একটি করলে সেটি ঠিক করবে আপনি করেছেন কিনা।

তবে বলা যায় এখনো এই প্রযুক্তির পুরোপুরি দক্ষতা অর্জন করতে পারে নি। এটাতে শুধু মাত্র ফেসিয়াল এক্সপ্রেশনের সাথে অনুমান নির্ভর রেজাল্ট দেয়া হয়েছে। যেমন কেউ যদি হাসে তাহলে এটি বলবে সে হ্যাপি আছে আবার ভ্রূকুটি করলে বলবে কেউ রাগান্বিত আছে।

শেষ কথাঃ

হয়তো এই ইমোশন রিকগনিশন ইন্টেলিজেন্সটি পুরোপুরি দক্ষ হতে এবং প্রয়োগে আসতে আরও কয়েক বছর সময় লাগবে ততদিন পর্যন্ত এটিকে একটি গেম হিসেবে বিবেচনা করাই ভাল।

তো কেমন হল আজকের টিউন তা জানাতে অবশ্যই টিউমেন্ট করুন, আমাদের জানান আপনার অ্যাপটি কেমন লেগেছে৷ পরবর্তী টিউন পর্যন্ত ভাল থাকুন, আল্লাহ হাফেজ।

Level 28

আমি সোহানুর রহমান। সুপ্রিম টিউনার, টেকটিউনস, ঢাকা। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 7 বছর 7 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 480 টি টিউন ও 186 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 56 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

কখনো কখনো প্রজাপতির ডানা ঝাপটানোর মত ঘটনা পুরো পৃথিবী বদলে দিতে পারে।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস